Mir cement
logo
  • ঢাকা রোববার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

ধসে পড়তে পারে ৬৯ বছরের পুরোনো সেতু

ধসে পড়তে পারে ৬৯ বছরের পুরোনো সেতু
৬৯ বছরের পুরোনো সেতু

ফেনীর এক সময়ের অতি গুরুত্বপূর্ণ শুভপুর সেতু এখন জরাজীর্ণ। যেকোনো মুহূর্তে ধসে পড়তে পারে সেতুটি। ১৯৫২ সালে তৎকালীন পাকিস্তান সরকারের আমলে নির্মিত ৩৭৪ মিটার দৈর্ঘ্যের এই সেতুটি ফেনী-চট্টগ্রাম-খাগড়াছড়ি জেলার সড়ক যোগাযোগের অন্যতম মাধ্যম। ৬৯ বছর পুরোনো ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের ফেনী নদীর ওপর অবস্থিত সেতুটি। সেতুটি ধসে পড়ার আশঙ্কায় পথ বন্ধ করে দেওয়ার পরও ঝুঁকি নিয়ে যানবাহন চলাচল করছে। দীর্ঘ সময় ধরে জরাজীর্ণ এই সেতু দিয়ে ভারী যানবাহন বন্ধ থাকায় মিরসরাই-ছাগলনাইয়া উপজেলা ও খাগড়াছড়ি জেলার মানুষকে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

জানা গেছে, মিরসরাই, ফেনী জেলার ছাগলনাইয়া, ফুলগাজী, পরশুরাম, উত্তর ফটিকছড়ি, খাগড়াছড়ি জেলার রামগড় উপজেলায় যানবাহন যোগে চলাচলের জন্য শুভপুর সেতুটি গুরুত্বপূর্ণ।

দেশের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলের মানুষের যোগাযোগ ও অর্থনৈতিক গুরুত্বের কথা বিবেচনায় তৎকালীন ব্রিটিশ সরকার ফেনী নদীর ওপর শুভপুর সেতু স্থাপনের নকশা প্রণয়ন করেছিল। ১৯৪৭ সালে উপমহাদেশ স্বাধীন হওয়ার পর ১৯৫২ সালে তৎকালীন পাকিস্তান সরকার ৩৭৪ মিটার দীর্ঘ ফেনী নদীর ওপর শুভপুর সেতু নির্মাণ করেন। ৬৯ বছর ধরে ব্যবসায়িক ও আর্থিক প্রয়োজনে শুভপুর সেতু দিয়ে সড়ক পথে চট্টগ্রাম বিভাগের যানবাহন চলাচল করেছে।

১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধে শুভপুর সেতু এলাকায় কয়েক দফায় মুক্তিযোদ্ধা ও পাকিস্তানি বাহিনীর মধ্যে যুদ্ধ হয়।

মিরসরাইয়ের করেরহাট ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এনায়েত হোসেন নয়ন আরটিভি নিউজকে জানিয়েছেন, শুভপুর সেতুর ওপর দিয়ে ঝুঁকি নিয়ে যানবাহন চলছে। সেতুটি পুনরায় নির্মাণের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দাবি জানাচ্ছি।

এমআই/এসকে

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS