Mir cement
logo
  • ঢাকা শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ৮ কার্তিক ১৪২৮

নারীকে ফাঁসাতে গিয়ে ফাঁসছেন ৬ পুলিশ

নারীকে ফাঁসাতে গিয়ে ফাঁসছেন পুলিশ
ফাইল ছবি

রাজশাহীতে দুই নারী বাসযাত্রীকে মাদক মামলায় ফাঁসিয়ে দেয়ার ভয় দেখিয়ে এক লাখ টাকা চাঁদা হাতিয়ে নেয়াসহ নগদ টাকা ছিনতাইয়ের অভিযোগে ৬ পুলিশ সদস্যকে বরখাস্ত করা হয়েছে। শৃঙ্খলা পরিপন্থী কাজের অপরাধে তাদের বরখাস্ত করে পুলিশ লাইনে ক্লোজ (প্রত্যাহার) করা হয়েছে।

বিষয়টি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছে পুলিশ। এর আগে গতকাল (২৩ সেপ্টেম্বর) বৃহস্পতিবার রাতে মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক তাদের বরখাস্তের আদেশ জারি করেন।

এ বিষয়ে রাজশাহী মহানগর পুলিশের বোয়ালিয়া থানার ওসি নিবারণ চন্দ্র বর্মণ সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, মাদক মামলায় গ্রেপ্তার দেখানোর ভয় দেখিয়ে এক লাখ টাকা বিকাশে আদায় এবং সাড়ে চার হাজার টাকা নগদ ছিনিয়ে নেয়ার ঘটনায় দুই নারী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন। শৃঙ্খলা পরিপন্থী কাজের দায়ে তাদের বরখাস্ত করে পুলিশ লাইনে ক্লোজ করা হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

পুলিশ ও অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, নারায়ণগঞ্জ ও কুমিল্লা থেকে দুইজন নারী বৃহস্পতিবার সকালে বাসযোগে রাজশাহীতে তাদের এক আত্মীয়ের বাসায় বেড়াতে যান। তারা শিরোইল বাস টার্মিনালে নামার পরপরই এটিএসআই নাসিরসহ বক্স পুলিশ সদস্যরা তাদের আটক করে। এরপর ওই দুই নারীকে ইয়াবাসহ গ্রেপ্তার দেখানোর হুমকি দেন ওই পুলিশ সদস্যরা। এ সময় তারা ভুক্তভোগীদের কাছে এক লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেন। বাধ্য হয়ে ওই দুই নারী তাদের পরিবারকে বিষয়টি জানান। এরপর পরিবারের সদস্যরা বিকাশের মাধ্যমে এক লাখ টাকা দেয় পুলিশকে। এছাড়া তাদের দুজনের কাছে থাকা নগদ সাড়ে চার হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয়া হয়।

মেট্রোপলিটন পুলিশের মুখপাত্র ও অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার রুহুল কুদ্দুস সংবাদমাধ্যমকে জানান, বৃহস্পতিবার সকালে দুই নারী বাসযাত্রীর কাছ থেকে এক লাখ টাকা ছিনিয়ে নেয়া হয়। বিকেলে পুলিশ কমিশনারের দপ্তরে এমন অভিযোগ করা হয়েছে। ওই অভিযোগের প্রাথমিক তদন্ত শেষে শিরোইল বাস টার্মিনাল বক্সের ৬ জনকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

বরখাস্ত ছয়জনের মধ্যে দুইজন কর্মকর্তা ও চারজন কনস্টেবল। দুই কর্মকর্তা হলেন শিরোইল টার্মিনাল পুলিশ বক্সের ইনচার্জ এটিএসআই নাসির উদ্দিন ও এএসআই সেলিম। অন্য চারজন কনস্টেবল হলেন সারোয়ার, রিপন, শাহ আলম ও শংকর।

এমআই/পি

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS