Mir cement
logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ০৭ মে ২০২১, ২৪ বৈশাখ ১৪২৮

পিরোজপুরে দুই ইউপি চেয়ারম্যানকে সাময়িক বরখাস্ত

Two UP chairmen have been suspended in Pirojpur
পিরোজপুরে দুই ইউপি চেয়ারম্যানকে সাময়িক বরখাস্ত

পিরোজপুরে বিভিন্ন অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগে ২ ইউপি চেয়ারম্যানকে বরখাস্ত করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৭ এপ্রিল) সন্ধ্যায় এ সংক্রান্ত একটি চিঠি ই-মেইলের মাধ্যমে পেয়েছেন নাজিরপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. ওবায়দুর রহমান।

বরখাস্তকৃত ইউপি চেয়ারম্যানরা হলেন, জেলার নেছারাবাদ উপজেলার ৫নং জলাবাড়ি ইউপি চেয়ারম্যান আশিষ কুমার বড়াল ও নাজিরপুরের ২নং মালিখালী ইউপি চেয়ারম্যান সুমন মণ্ডল মিঠু। তারা উভয়েই আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান ও আসন্ন প্রথম ধাপের (করোনার কারণে বন্ধ হয়ে যাওয়া) ইউপি নির্বাচনে নৌকা প্রতীক নিয়ে মনোনীত প্রার্থী হিসাবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-সচিব মো. আবু জাফর স্বাক্ষরিত ওই চিঠিতে জানা গেছে, মুজিববর্ষ উপলক্ষে সরকার কর্তৃক অসহায়দের জন্য দেয়া বিনামূল্যে বিতরণকৃত ঘর প্রদানের বিনিময় অর্থ গ্রহণ, সরকারী টিউবওয়েল প্রদানের বিনিময় নগদ অর্থ গ্রহণ, ভিজিডি’র উপকার ভোগী বাছাইয়ের ক্ষেত্রে অনিয়মের অভিযোগ স্থানীয় তদন্তে সত্য প্রমাণিত হওয়ায় জনস্বার্থে স্থানীয় সরকার জেলার নাজিরপুরের ২নং মালিখালী ইউপি চেয়ারম্যান সুমন মণ্ডল মিঠুকে সাময়িক বরখাস্ত করেন।

জানা গেছে, সম্প্রতি ওই ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক বিনামূল্যে ঘর প্রদানের বিনিময় উৎকোচ গ্রহণ, গভীর নলকূপ প্রদানের বিনিময়, ভিজিডিসহ বিভিন্ন সরকারী অনুদান প্রদানে উৎকোচ গ্রহণের অভিযোগে স্থানীয়রা সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন দপ্তরে অভিযোগ প্রদান করে। সুমনের বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রী ও তার পরিবারের বিভিন্ন সদস্যদের নাম ভাঙ্গিয়ে আর্থিক ও বিভিন্ন সুবিধা গ্রহণের অভিযোগ রয়েছে।

এ ছাড়া জেলার নেছারাবাদ উপজেলার ৫নং জলাবাড়ি ইউপি চেয়ারম্যান আমিষ কুমার বড়ালের বিরুদ্ধে মৎস্যজীবীদের জন্য বরাদ্দকৃত ৩৭ বস্তা চাল আত্মসাতের অভিযোগে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। জেলা প্রশাসক আবু আলী মোহাম্মাদ সাজ্জাদ হোসেন ওই ইউপি চেয়ারম্যানের বরখাস্তের চিঠি বুধবার (২৮এপ্রিল) ই-মেইলের মাধ্যমে পেয়েছেন বলে নিশ্চিত করেছেন।

সাময়িক বরখাস্তকৃত ওই ২ ইউপি চেয়ারম্যানের সাথে মোবাইল ফোনে কথা হলে মালিখালী ইউপি চেয়ারম্যান সুমন মণ্ডল মিঠু জানান, এ বিষয়ে কিছুই জানেন না। অন্যদিকে জলাবাড়ি ইউপি চেয়ারম্যান আশিষ কুমার বড়াল এ বিষয়ে মৌখিক ভাবে শুনেছেন। তবে তারা উভয়েই এর বিরুদ্ধে আইনি লড়াই করবেন বলে জানান।

জিএম

RTV Drama
RTVPLUS