logo
  • ঢাকা সোমবার, ১৯ এপ্রিল ২০২১, ৬ বৈশাখ ১৪২৮

স্বামীর সঙ্গে জেদ করে দুই সন্তানসহ স্ত্রীর বিষপান, স্ত্রীর মৃত্যু

স্বামীর সঙ্গে জেদ করে দুই সন্তানসহ স্ত্রীর বিষপান, স্ত্রীর মৃত্যু
ফাইল ছবি

পারিবারিক কলহের জেরে ধরে সুমাইয়া আক্তার (২৫) নামের এক নারী তার দুই মেয়েকে বিষ পান করিয়ে নিজে বিষ পান করে আত্মহত্যা করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

আজ রোববার (৪ এপ্রিল) দুপুর ১২টার দিকে শরীয়তপুরের গোসাইরহাট উপজেলার দাসেরজঙ্গল গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

দুপুর দেড়টার দিকে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে নিলে সুমাইয়াকে মৃত্যু বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসক। ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে তাকে।

এদিকে সুমাইয়ার মেয়ে হালিমা আক্তার (৩) ও আবু হুরাইরাকে (২) অসুস্থ অবস্থায় সদর হাসপাতালের চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেছে।

সুমাইয়ার বাবা সোহাগ খান বলেন, ছয় বছর আগে গোসাইরহাট উপজেলার নাগেরপাড়া ইউনিয়নের ডালীরহাট গ্রামের ইউসুফ আলী হাওলাদারের ছেলে সাইফুল হাওলাদারের সঙ্গে আমার মেয়ের পারিবারিক ভাবে বিয়ে হয়। সাইফুল ভ্যান চালক। বিয়ের পর থেকেই দুজনের সঙ্গে ঝগড়া হতো। ওরা গোসাইরহাট দাসেরজঙ্গল এলাকায় দুই মেয়েকে নিয়ে ভাড়া বাসায় থাকে। আজ দুপুরে আবার পারিবারিক বিষয়ে সুমাইয়ার সঙ্গে মতবিরোধ হয় সাইফুলের। একপর্যায়ে সাইফুল বাসার থেকে বের হয়ে গেলে মেয়ে সুমাইয়া ক্ষোভে নাতনী হালিমা ও আবু হুরাইরাকে বিষ পান করিয়ে নিজেও বিষ (কীটনাশক এন্ডিল) পান করে।

গোসাইরহাট থানার ওসি মোল্লা সোয়েব আলী বলেন, পারিবারিক কলহের জেরে আজ সুমাইয়া ও তার স্বামী সাইফুল হাওলাদারের সঙ্গে ঝগড়া হয়। ঝগড়ার পর সাইফুল বাসা থেকে বের হয়ে যান। পরে অপমান সহ্য করতে না পেরে ক্ষোভে ঘুমাইয়া তার দুই মেয়েকে বিষপান করান ও নিজেও বিষ পান করেন। আহত অবস্থায় তাদের সদর হাসপাতালে নিলে সুমাইয়া মৃত্যুবরণ করেন। আর তার দুই মেয়ের চিকিৎসা চলছে। এখনও কোন অভিযোগ হয়নি। তদন্ত চলছে।

এসএস

RTV Drama
RTVPLUS