logo
  • ঢাকা মঙ্গলবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২০, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

যার বিরুদ্ধে যৌন নিপীড়নের মামলা, তার সঙ্গেই আবাসিক হোটেলে কলেজছাত্রী

Against whom the case of sexual, harassment, rtv news
প্রতীকী ছবি

ব্রাহ্মণবাড়িয়া আখাউড়া উপজেলায় কলেজছাত্রীকে ধর্ষণের পর তোলা ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দিয়েছে এক যুবক।

গতকাল শুক্রবার রাতে আশরাফুল ইসলাম স্বাধীন (২২) নামে এক যুবকের বিরুদ্ধে ওই ভুক্তভোগীর কলেজছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে পর্নোগ্রাফী আইনে আখাউড়া থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

অভিযুক্ত আশরাফুল ইসলাম ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগর উপজেলার লক্ষ্মীপুর গ্রামের বাসিন্দা শামীম মিয়ার ছেলে। এদিকে পৌরশহরের দেবগ্রামের এ ঘটনায় আখাউড়া জুড়ে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, বিজয়নগর উপজেলার আশরাফুল ইসলাম পৌরশহরের রাধারনগর এলাকার বণিকপাড়ায় তার বোনের বাড়ি থেকে আখাউড়া ডিজিটাল কম্পিউটার প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে কম্পিউটার শিখতে যান ওই ছাত্রী।

সেখানে ওই কলেজছাত্রীর সঙ্গে আশরাফুল ইসলাম স্বাধীনের পরিচয় হয়। পরে আশরাফুল ইসলাম স্বাধীন ওই কলেজছাত্রীকে প্রায়ই উত্যক্ত করতে থাকে।

গেলো ১৩ অক্টোবর বিকেল বেলায় পৌরশহরের রাধানগর মন্দিরের পাশে ওই কলেজছাত্রীকে একা পেয়ে যৌন নিপীড়ন চালায়। এ ঘটনায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল নং-৩, ব্রাহ্মণবাড়িয়া আদালতে মামলা দায়ের করা হয়েছে। যার তদন্ত চলছে।

মামলায় আরও উল্লেখ করা হয়, আদালতে মামলার বিষয়টি আশরাফুল ইসলাম স্বাধীন জানতে পেরে ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে। সম্প্রতি ওই কলেজছাত্রীকে ফুসলিয়ে প্রলোভন দেখিয়ে আবাসিক হোটেল নিয়ে যায়। সেখানে আশরাফুল মেয়েটির ইচ্ছার বিরুদ্ধে ধর্ষণচেষ্টা চালিয়ে মোবাইল ফোনে অশ্লীল (আপত্তিকর) ছবি ধারণ করে।

পরে ওই ছবি ফেসবুক ম্যাসেঞ্জার, ইমুতে ওই কলেজছাত্রীর পরিবার ও আত্মীয়স্বজনদের কাছে পাঠায়। ওই কলেজছাত্রীর আপত্তিকর ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল করে দেয় আশরাফুল ইসলাম স্বাধীন।

আখাউড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রসুল আহম্মদ নিজামী বলেন, এ ঘটনায় ভুক্তভোগী ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে পর্নোগ্রাফী আইনে আখাউড়া থানায় মামলা দায়ের করেছেন। ওই যুবককে গ্রেপ্তারের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

জেবি

RTVPLUS