logo
  • ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২০, ১১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি, আরটিভি নিউজ

  ১৮ নভেম্বর ২০২০, ১৫:৫৫
আপডেট : ১৮ নভেম্বর ২০২০, ২০:৪৮

প্রেমিক-প্রেমিকা সেজে ছিনতাই করতো তারা (ভিডিও)

চট্টগ্রামের ছুরিকাঘাত করে ছিনতাইকারী চক্রের সদস্য, কিশোর অপরাধী ছিনতাইকারী চক্রের সদস্যসহ ১৩ জন ছিনতাইকারীকে নয়টি ছোরাসহ গ্রেপ্তার করেছে কোতোয়ালি থানা পুলিশ।

এ সময় উদ্ধার করা হয়েছে ২৭টি মোবাইল ফোন।  আজ বুধবার সকালে কোতোয়ালি থানায় সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান নগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার পলাশ কান্তি নাথ।

তিনি বলেন, সোমবার কেবি আব্দুস সাত্তার রোড ও সার্সন রোডে ছুরি মেরে দুইটি ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় পাওয়া একটি সিসিটিভির ফুটেজের সূত্র ধরে  এক মহিলাসহ তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। চক্রটি প্রেমিক-প্রেমিকা সেজে সিএনজি ভাড়া করে। পরে সাধারণ মানুষকে টার্গেট করে ছুরি মেরে ছিনতাই করে। তাদের কাছ থেকে ছিনতাইকৃত তিনটি মোবাইল ফোন ও ছুরি উদ্ধার করা হয়েছে। 

কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মহসিন আরটিভি নিউজকে বলেন, আটক রাকিবুল হাসান, নিপা বগারবিল ও দেওয়ানবাজার এলাকায় ভসমান অবস্থায় বসবাস করে। তারা প্রেমিক-প্রেমিকা পরিচয় দিকে ঘুরাঘুরির কথা বলে প্রথমে সিএনজি ভাড়া নেয়। তাদের সহযোগী পলাতক  রাশেদ সিএনজি ড্রাইভারের পাশে বসে থাকে। ছিনতাই করার জন্য কোথাও দাঁড়িয়ে অবস্থান করার সময় ছেলে এবং মেয়ে গল্প করার ভান করে রাস্তায় দাঁড়িয়ে থাকে। এ সময় মোবাইল হাতে থাকা একাকী পথচারীকে টার্গেট করে তারা।

ওসি আরও বলেন, রাস্তায় কোথাও অপেক্ষা করাকালীন সময়ে পথচারীদের সন্দেহে না আসার জন্য  তাো প্রেমিক-প্রেমিকা হিসেবে গল্প করে । নিপা ও রাকিবের টার্গেট সাধারণ মানুষকে ছুরির ভয় দেখিয়ে ছিনতাই করা। আর বাধা দেয়ার চেষ্টা করলে রাকিব ছুরিকাঘাত করে মোবাইলসহ মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে যায়।

পুলিশের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার পলাশ কান্তি নাথ বলেন, গেলো সোমবার অরবিন্দু দত্ত নামে এক লোক পায়ে হেঁটে গণি বেকারির দিকে যাওয়ার পথে কেবি আব্দুস সাত্তার রোডে  গ্রেপ্তার রাকিব ও নিপা পথরোধ করে মোবাইল ছিনতাই করার চেষ্টা করে। এতে অরবিন্দু বাধা দিলে তাকে ছুরিকাঘাত করে  মোবাইল ফোন ছিনতাই করে নিয়ে যায়। একইভাবে গতকাল মঙ্গলবার ও  সার্সন রোডে একই কায়দায় ছিনতাই করে চক্রটি।

 তিনি আরও বলেন, তথ্যপ্রযুক্তি ও  গোপন সংবাদে পুলিশ জানতে পারে একজন ছেলে  ও মেয়ে স্টেশন রোডে পুরাতন মোবাইল বিক্রি করতে আসছে। পরে গতকাল মঙ্গলবার রাতে ছিনতাইকৃত মোবাইলসহ আলাউদ্দিন নামে একজনকে গ্রেপ্তার করে।  পরে রাত নয়টার দিকে রাকিবুল ও নিপাকে গ্রেপ্তার করা হয় ।

কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মহসিন আরটিভি নিউজকে জানান, রাজাপুকুর লেইন থেকে তিনটি ছোরাসহ কিশোর অপরাধ চক্রের পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এর আগেও এই চক্রটি কিশোর সংশোধানাগারে গিয়েছিলো।  ফিরে এসে আবার ও ছিনতাই চক্রে জড়িয়ে পড়ছে।

তিনি আরও বলেন, গ্রেপ্তারকৃতরা দিনে ও রাতে যেকোনো সময় সুযোগ বুঝে রাস্তায় পথচারীর কাছ থেকে চাকু ছরির ভয় দেখিয়ে মূল্যবান জিনিসপত্র ছিনতাই করে থাকে।

তিনি আরও বলেন, কিশোর অপরাধীরা চট্টগ্রাম মহানগর বগারবিল এলাকায় ভাসমান হিসেবে বসবাস করে।

এই চক্রটি চুরি, ছিনতাইসহ বিভিন্ন ধরনের অপরাধের সঙ্গে জড়িত। তাদের সবার বয়স ১৩ থেকে ১৯ বছরের মধ্যে।

এদিকে আন্দরকিল্লার সিরাজউদ্দৌলা রোড থেকে  এক মহিলাসহ পাঁচ ছিনতাইকারীকে গ্রেপ্তার করা হয়। উদ্ধার করা হয় দুইটি ছুরি ও ২৪ টি মোবাইল ফোন।

 কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জানিয়েছেন, গত ২৪ ঘণ্টার অভিযানে এই ১৩ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

জেবি

RTVPLUS