logo
  • ঢাকা সোমবার, ৩০ নভেম্বর ২০২০, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

বাগেরহাট প্রতিনিধি, আরটিভি নিউজ

  ১৭ নভেম্বর ২০২০, ১৭:৪২
আপডেট : ১৭ নভেম্বর ২০২০, ১৭:৪৮

মাদরাসাছাত্রী হত্যা মামলায় আসামির ৫ বছরের কারাদণ্ড

Accused sentenced, to 5 years in prison for killing madrasa, rtv news
আদালত
বাগেরহাটের মোড়েলগঞ্জে হিরা আক্তার (১১) নামের ষষ্ঠ শ্রেণির মাদরাসাছাত্রীকে শ্বাসরোধ করে হত্যা মামলায় শিশু আসামি হাসান রশিদ মৃধাকে (১৩) পাঁচ বছরের কারাদণ্ড প্রদান করেছেন আদালত।একইসঙ্গে তাকে  শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রে আটক রাখার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

আজ মঙ্গলবার (১৭ নভেম্বর) দুপুরে বাগেরহাট নারী শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. নুরে আলম এই রায় ঘোষণা করেন।

এই মামলার তিন আসামি স্বামী-স্ত্রী ও নাতির  মধ্যে শুধু মাত্র নাতি শিশু আসামি হাসান রশিদকে  শিশু আইন ২০১৩ বিচারের রায় দেয়া হয়। রায়ের সময়ে হাসান রশিদ আদালতে উপস্থিত ছিলেন। আলোচিত এই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত বাকি দুই আসামি মুক্তার মৃধা ও তার স্ত্রী মনোয়ারা বেগম কারাগারে রয়েছেন।

এই হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকায় তাদের বিষয়ে অন্য আদালতে বিচার কার্যসম্পন্ন হবে।

মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণে জানা গেছে, বাগেরহাট জেলার মোরেলগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম বহরবুনিয়া গ্রামে ২০১৯ সালের দুই জুলাই বিকেলে গাউছ শেখের বাড়ি থেকে তার মেয়ে ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী হিরা আক্তারের বিবস্ত্র ও শরীরে লিপিস্টিক লাগানো ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। চার জুলাই তিনজনকে অভিযুক্ত করে মামলা দায়ের করেন নিহতের মা নাসিমা বেগম।

হত্যার কারণ হিসেবে এ মামলার এক নম্বর আসামি মুক্তার মৃধার সঙ্গে নিহত মাদরাসাছাত্রীর মা মামলার বাদী নাসিমার সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্কের প্রস্তাব দেয়। তাতে তিনি সাড়া না দিয়ে তাকে অপমান করে বাড়ি থেকে বের করে দেন। এই প্রতিশোধ নিতে স্বামী- স্ত্রী ও নাতি মিলে তার শিশু মেয়েকে বাড়িতে একা পেয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে বিবস্ত্র করে ঘরের আড়ার সঙ্গে মরদেহ ঝুলিয়ে রাখে।

এ ঘটনায় ১৮ নভেম্বর পুলিশ ওই তিন আসামিকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দাখিল করে। আসামি শিশু হওয়ায় মামলার গেলো ২৫ নভেম্বর এই মামলার নথি শিশু আদালতে পাঠানো হলে আদালত অভিযোগ আমলে নিয়ে চলতি বছরের ১৫ মার্চ  আসামি হাসান রশিদ মৃধার বিরুদ্ধে চার্জশিট দাখিল করে।  শিশু আদালতে এই মামলার বিচার চলাকালে সাতজনের সাক্ষ্যগ্রহণ করে আজ মঙ্গলবার জনাকীর্ণ আদালতে শিশু আসামির উপস্থিতিতে এই রায় ঘোষণা করেন।

জেবি/এম 

RTVPLUS