logo
  • ঢাকা শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

সেতু নির্মাণের দুই বছর পরেই বেহাল দশা (ভিডিও)

চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলার জহিরাবাদ ইউনিয়নের চরাঞ্চলে এলাকা চর উমেদের একটি সেতু নির্মাণের দুই বছর না যেতেই সেতুটির বেহাল অবস্থা দেখা দেয়। এতে করে সেতুটি দিয়ে জহিরাবাদ ইউনিয়নের ৮ ও ৯ নম্বর ওয়ার্ডের প্রায় ২০ হাজার মানুষের যাতায়াতের বিঘ্ন ঘটছে। 

এলাকাবাসীরা জানান, মাত্র দুই বছর আগে সেতুটি নির্মাণ করা হয়। সেতুটি জহিরাবাদ ইউনিয়নের ৮ ও ৯ নম্বর এলাকার বাসিন্দাদের যাতায়াতের পথ হিসেবে ব্যবহার করা হয়। তবে দুই বছর পার না হতেই সেতুটির বেহাল দশায় দুইপাশে কাঠ এবং বাঁশের জোড়াতালি সংযোগ স্থাপন করে ঝুঁকি নিয়ে ২০ হাজার মানুষ প্রতিদিন পারাপার হচ্ছেন।

স্থানীয় বাসিন্দা শামীম আহমেদ জানান, আমরা চরাঞ্চলের মানুষ আমাদের একমাত্র যাতায়াতের রাস্তা হলো লঞ্চ কিংবা নৌকা। কিছুদিন আগে এই সেতু দিয়ে পার হওয়ার সময় একজন মহিলা পড়ে গিয়ে তার পা ভেঙে যায়, সে এখনো হাসপাতালে ভর্তি। এছাড়া ছোট ছোট বাচ্চাদেরও এই সেতু দিয়ে ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করতে হয়। 

৯ নম্বর ওয়ার্ডের ইউসুফ মেম্বার বলেন, গত এক বছর হয় বন্যার পানিতে সেতুতে ওঠার দুপাশে রাস্তাটা ভেঙে যায়, তখন আমরা বাঁশ ও কাঠ দিয়ে সেতুতে ওঠার মতো একটা ব্যবস্থা করে দেই। তার কিছুদিন পরে সেতুটির মাঝখানে দেবে যায় এতে করে ঝুঁকি নিয়ে পারাপার হতে হচ্ছে। আমরা আমাদের সাবেক চেয়ারম্যান আলী আক্কাসেকে বিষয়টি জানালে সেতু করে দেয়ার আশ্বাস দেন। তবে তার কিছুদিন পর চেয়ারম্যান মারা যাওয়ার কারণে সেতুটির সংস্কারের কাজ হয়নি।

এ বিষয়ে জহিরাবাদ ইউনিয়নের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান মো. সেলিম মিয়া গাজী বলেন, আমি শপথ নেয়ার পরপরই সেতুটির বিষয়ে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করব।

আরও পড়ুন: 
হারিয়ে যাওয়া শিশুকে ফিরে পেলেন মা
নড়াইল সাব রেজিস্ট্রি অফিসের ২০ লাখ টাকা আত্মসাৎ

এসএস

RTVPLUS