• ঢাকা সোমবার, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ৬ ফাল্গুন ১৪২৫

বাসে ছাত্রীকে ধর্ষণচেষ্টায় অভিযুক্ত ৩ জন গ্রেপ্তার

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ২৩ এপ্রিল ২০১৮, ২১:০৮ | আপডেট : ২৩ এপ্রিল ২০১৮, ২১:১২
রাজধানীর বাড্ডায় তুরাগ বাসে উত্তরা ইউনিভার্সিটির ছাত্রীকে ধর্ষণচেষ্টায় অভিযুক্ত ৩ জন গ্রেপ্তার হয়েছেন।

সোমবার রাতে ইউনিভার্সিটির কম্পিউটার অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী রাজীব মৃধা আরটিভি অনলাইনকে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, গ্রেপ্তার হওয়া ড্রাইভার, কন্ডাক্টর ও হেলপারকে শনাক্ত করেছেন ভুক্তভোগী নিজেই। তারা এখন গুলশান থানায় রয়েছেন।

এর আগে এদিন বিকেলে ইউনিভার্সিটির ক্যাম্পাসে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে শিক্ষার্থীদের পক্ষে লিখিত বক্তব্য পাঠকালে পারভেজ হোসেন অভিযুক্তদের গ্রেপ্তারে ২৪ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দেন।

--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন : মোদির সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন ওবায়দুল কাদের
--------------------------------------------------------

তিনি বলেন, শুধু গ্রেপ্তার নয়, আমাদের দাবি অপরাধী সবাইকে শাস্তির আওতায় আনতে হবে।

উল্লেখ্য, গত শনিবার দুপুরে উত্তরা ৬নং সেক্টরে অবস্থিত উত্তরা ইউনিভার্সিটির ক্যাম্পাসে আসার জন্য উত্তর বাড্ডা থেকে তুরাগ পরিবহনের একটি বাসে ওঠেন ওই ছাত্রী। এসময় বাসে যাত্রী ছিলেন মাত্র ৭-৮ জন।

নাটকীয়ভাবে বাস কর্মচারীরা বাস সামনে যাবে না বলে যাত্রীদের নামাতে থাকে এবং নতুন কোনো যাত্রী ওঠানো বন্ধ রাখে। এতে ওই ছাত্রীর সন্দেহ হলে তিনি বাস থেকে নামতে চেষ্টা করেন। কিন্তু বাসের হেলপার দরজা বন্ধ করে দেয় এবং কন্ডাক্টর তার হাত ধরে টানতে শুরু করে।

কন্ডাক্টর ও হেলপারের সঙ্গে ধস্তাধস্তির একপর্যায়ে চলন্ত গাড়ি থেকে লাফিয়ে পড়েন মেয়েটি। তিনি অন্য একটি বাসে চড়ে ইউনিভার্সিটির ক্যাম্পাসে এসে বিষয়টি কর্তৃপক্ষকে জানালে কর্তৃপক্ষ আশানুরূপ কোনো সমাধান দেননি।

পরে ওই ছাত্রীর সহপাঠীরা বিষয়টি জেনে আইনি সহযোগিতার জন্য কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ করে। কোনোভাবে সুরাহা না হওয়ায় রোববার দুপুরে তারা ওই বাস, বাসের হেলপার ও কন্ডাক্টরকে আটকের দাবিতে রাস্তায় মানববন্ধন করে। বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা তুরাগ পরিবহনের অর্ধশতাধিক বাস আটকে রাখে।

এদিকে রোববার বিকেলে ধর্ষণচেষ্টার ঘটনায় অজ্ঞাতনামা ৩ জনের বিরুদ্ধে গুলশান থানায় মামলা করছেন ভুক্তভোগী ছাত্রীর স্বামী।

আরও পড়ুন : 

কে/জেএইচ

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়