logo
  • ঢাকা রোববার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১২ আশ্বিন ১৪২৭

একটি বিলবোর্ডের জন্য রাজধানীতে লাখো মানুষের দুর্ভোগ!

  আরটিভি নিউজ

|  ০২ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৭:১৫ | আপডেট : ০২ সেপ্টেম্বর ২০২০, ২০:১০
বিলবোর্ড মেয়র শাহজালাল
রাজধানীর শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের গোল চত্বরের পুলিশ বক্সের ওপরের অবৈধ এই বিলবোর্ডটি ১৬ বছর পর সরিয়েছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন
রাজধানীর শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের গোল চত্বরের পুলিশ বক্সের ওপর অবৈধ বিলবোর্ডটি অপসারণ করেছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন। প্রায় ১৬ বছর পর এই বিলবোর্ডটি অপসারণ করেছেন মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম। তবে এই বিলবোর্ড অপসারণকে কেন্দ্র করে টঙ্গীর চেরাগ আলী থেকে বিমানবন্দর রেলস্টেশন পর্যন্ত তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। এতে ঢাকা-ময়মনসিংহ রোডে ছোট-বড় বিভিন্ন ধরনের যানবাহনকে ঘণ্টার পর ঘণ্টা রাস্তায় দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা গেছে।

কোনও উপায় না পেয়ে যাত্রীরা বাস থেকে নেমে হেঁটে গন্তব্যস্থলের দিকে রওনা দিয়েছেন। তবে হেঁটে আসা যাত্রী বা বাসের চালক কেউই বলতে পারছিলেন না কেন এই তীব্র যানযাজট?

সরজমিনে বেলা দুইটার দিকে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের গোল চত্বরে এসে দেখা গেছে। ঢাকার প্রবেশ পথটি বন্ধ করে একটি বিশাল বড় বিলবোর্ড ভাঙছেন সিটি করপোরেশনের কর্মীরা। যে কারণে পুলিশ নিরাপত্তার অজুহাত দেখিয়ে পায়ে হাঁটা যাত্রীদেরও মহাসড়ক দিয়ে চলাচল করতে বাধা দিচ্ছে। বাধ্য হয়েই জনসাধারণকে রেললাইন পাড় হয়ে খিলক্ষেতের দিকে আসতে হচ্ছে।

এমনি প্রায় ৭০ বছরের বৃদ্ধ মনিরুজ্জামান তিনি আব্দুল্লাপুর থেকে হেঁটে বিমানবন্দর রেলস্টেশন পর্যন্ত এসেছেন। গন্তব্য শাহবাগের বারডেম হাসপাতাল। তিনি আরটিভি নিউজকে বলেন, আমি আর্থরাইটিকসের রোগী। থেরাপি নেওয়ার জন্য বারডেম হাসপাতালে যাব। কোনও গাড়ি পাচ্ছি না। তিনটায় আমার থেরাপি নেয়ার কথা। কখন যেতে পারব জানি না।

শুধু মনিরুজ্জামানেই নন। এমন হাজারও যাত্রী এই একটি বিলবোর্ডের জন্য দুর্ভোগ ভোগ করেছেন। অফিসগামী অনেকেই সঠিক সময়ে অফিসে যাওয়ার জন্য বাসের বিকল্প হিসেবে সিএনজি, মোটরসাইকেল এমনকি জীবনের ঝুঁকি নিয়ে পিকাআপে করে গন্তব্যস্থলের দিকে ছুটছেন।

এই দুর্ভোগের সুযোগে সিএনজি, মোটরসাইকেল চালকরাও ভাড়া বেশি নিচ্ছেন। বিমানবন্দর থেকে খিলক্ষেত পর্যন্ত অন্য সময় মোটরসাইকেলে ভাড়া পঞ্চাশ টাকা। কিন্তু তাদেরকে সেখানে যাত্রীদের কাছ থেকে ১০০ টাকা নিতে দেখা গেছে।

যানজটের কারণে ঢাকামুখী কোনও বাস আসতে না পারায় সবচেয়ে বেশি দুর্ভোগে পড়েছেন নারী যাত্রীরা। তীব্র রোদ্রের মধ্যে ঘণ্টার পর ঘণ্টা দাঁড়িয়ে আছেন বাসের জন্য। এমনি একজন যাত্রী তৃষা। তিনি বিমানবন্দর থেকে মহাখালী যাবেন। তবে কোনও যানবাহনে না পেয়ে প্রায় দুই ঘণ্টা ধরে বিমানবন্দর এলাকায় দাঁড়িয়ে আছেন। তিনি আরটিভি নিউজকে বলেন, এমন দুর্ভোগ জানলে বাসা থেকে বের হতাম না। এখন কিভাবে যাব বুজতে পারছি না।

বিমানবন্দর এলাকায় দাঁড়িয়ে থাকা যাত্রীরা জানান, অবৈধ বিলবোর্ডটি সরিয়ে নেওয়ায় তারা খুশি, তবে ডিএনসিসি এই উচ্ছেদ অভিযানটি রাতের বেলা অথবা ছুটির দিনে করতে পারত।

এ বিষয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত ঢাকা সিটি করপোরেশনের নির্বাহী ম্যাজিস্টেট মুতাকাব্বির আহমেদ আরটিভি নিউজকে বলেন, প্রায় ১৬ বছর পর অবৈধ বিলবোর্ডটি সরানো হলো। একটি ভালো কাজের জন্য কিছুটা দুর্ভোগ হতেই পারে। সাময়িক এই কষ্ট আশা করি মানুষ সহ্য করে নেবে।

ছুটির দিনে বা রাতে বিলবোর্ডটি সরানো যেত কিনা এই প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আমরা এই উচ্ছেদ অভিযানের বিষয়ে আগেই ঘোষণা দিয়েছি। আপনারা অনেক কিছুই চোখে দেখে বুজতে পারবেন না। বিশেষ কিছু কারণে দিনের বেলাতেই বিলবোর্ডটি সরানো হয়েছে।

বিলবোর্ডটি কার বা কাদের এই বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে মুতাকাব্বির আহমেদ বলেন, বিলবোর্ডটি কারা বসিয়েছে আমি তা জানি না।

তবে বিমানবন্দর এলাকার বেশ কয়েকজন দোকানদার নাম প্রকাশ না করার শর্তে আরটিভি নিউজকে জানান, এই বিলবোর্ডটিতে স্থানীয় বেশ কয়েকজন নেতা ঈদ, পূজাসহ বিভিন্ন সময়ে নিজেদের ছবিসহ ব্যানার ঝুলিয়ে প্রচারণা চালাতেন।         

অবৈধ এই বিলবোর্ডটির কারণে দর্ভোগ শুধু টঙ্গী থেকে বিমানবন্দর এলাকা পর্যন্তই সীমাবদ্ধ ছিল না। ঢাকার দিকে কোনও যানবাহন না আসার কারণে খিলক্ষেত, বিশ্বরোড, বনানী, মহাখালী, শাহীন কলেজ ও জাহাঙ্গীর গেইটেও যাত্রীদের যানবাহনের জন্য অপেক্ষা করতে দেখা গেছে।

তবে ১৬ বছর ধরে দাঁড়িয়ে থাকা অবৈধ এই বিলবোর্ডটি সরাতে পেরে অনেকটাই আত্মবিশ্বাসী মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম। তিনি ঘটনাস্থলে এসে সাংবাদিকদের বলেন, রাজধানীতে কোনও অবৈধ বিলবোর্ড থাকবে না। এটা আমার চ্যালেঞ্জ। এই অবৈধ বিলবোর্ডটি ১৬ বছর ধরে কেউ সরাতে পারেনি। আমি এটা অপসারণ করে এখনই নিলাম করব। এর মধ্য দিয়ে আমি একটি ম্যাসেজ দিতে চাই কেউ অবৈধ বিলবোর্ডের ব্যবসা করতে পারবে না।

জেবি

RTVPLUS
bangal
corona
দেশ আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ৩৫৫৪৯৩ ২৬৫০৯২ ৫০৭২
বিশ্ব ৩,২১,৯৬,৬৫৫ ২,৩৭,৫১,১৩৪ ৯,৮৩,৬০৯
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • বাংলাদেশ এর সর্বশেষ
  • বাংলাদেশ এর পাঠক প্রিয়