• ঢাকা সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৯ আশ্বিন ১৪২৫

খুলনা সিটির নির্বাচনে অনিয়ম তদন্তের আহ্বান মার্কিন রাষ্ট্রদূতের

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ১৬ মে ২০১৮, ২৩:১৩ | আপডেট : ১৬ মে ২০১৮, ২৩:২৬
ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত মার্শা ব্লুম বার্নিকাট খুলনা সিটি নির্বাচনে বলপ্রয়োগ ও অনিয়মের ঘটনা তদন্ত করে জড়িতদের আইনের আওতায় আনার আহ্বান জানিয়েছেন।

বুধবার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পররাষ্ট্র সচিব এম শহিদুল হকের সঙ্গে সাক্ষাৎ শেষে মার্কিন রাষ্ট্রদূত সাংবাদিকদের একথা বলেন। এ সময় বাংলাদেশে সফরে থাকা আসা ইউএসএইডের প্রশাসক মার্ক গ্রিন উপস্থিত ছিলেন।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে মার্কিন রাষ্ট্রদূত জানান, খুলনা সিটি করপোরেশন নির্বাচন তারা গভীরভাবে পর্যবেক্ষণ করেছেন। ভোটে যে বলপ্রয়োগ হয়েছে, ভোটারদের ভোটদানে বাধা দেয়া হয়েছে এসব ঘটনার উপযুক্ত তদন্ত করে জড়িতদের বিচারের আওতায় আনতে আমরা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি।

--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন : ১১৩ বছর পর সড়ক সেতু নির্মাণের উদ্যোগ!
--------------------------------------------------------

বার্নিকাট আরও বলেন, নির্বাচনে ভয়ভীতি প্রদর্শনের তাৎক্ষণিক প্রতিবেদনগুলো আমি খেয়াল করেছি। খুলনা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে আমি হতাশ। যেকোনো মূল্যে জিততে চাওয়া আসলে কোনো জয়ই নয়। সুষ্ঠু, অবাধ ও বিশ্বাসযোগ্য নির্বাচন স্বাস্থ্যকর গণতন্ত্রের মূল ভিত্তি। নিরপেক্ষ ও অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের শর্তগুলো কেবল ভোটের দিন নয়, সব সময়ই মেনে চলা উচিত।

গতকাল মঙ্গলবার খুলনা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী তালুকদার আবদুল খালেক ৬৬ হাজার ভোটে বিজয়ী হন। পরাজিত প্রার্থী বিএনপির নজরুল ইসলাম মঞ্জু ভোট ডাকাতির অভিযোগ তুলে ফল প্রত্যাখ্যান করেন। তার দাবি, পুলিশ ও প্রশাসন এক হয়ে ক্ষমতাসীন দলের প্রার্থীর হয়ে কাজ করেছে।

২৮৯টি ভোট কেন্দ্রের মধ্যে মাত্র তিনটিতে অনিয়মের কারণে ভোট স্থগিতের বিষয়টি তুলে ধরে নির্বাচন কমিশন বলেছে, খুলনায় চমৎকার পরিবেশে ভোটগ্রহণ হয়েছে।

অপরদিকে, নির্বাচন পর্যবেক্ষণকারী ইলেকশন ওয়ার্কিং গ্রুপ (ইডাব্লিউজি) অনিয়মের কয়েকটি ঘটনা তুলে ধরে বলেছে, এর মাত্রা ছিল কম, ফলে ফলাফলের উপর তা প্রভাব ফেলেনি।

আরও পড়ুন : 

পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়