• ঢাকা মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১০ আশ্বিন ১৪২৫

এই সপ্তাহ আপনার কেমন যাবে

লাইফস্টাইল ডেস্ক, আরটিভি অনলাইন
|  ১৭ আগস্ট ২০১৮, ০৮:৪২ | আপডেট : ১৭ আগস্ট ২০১৮, ০৯:১৯
মেষ (২১ মার্চ-২০ এপ্রিল)

এই সপ্তাহে অর্থপ্রাপ্তি হবে মেষ রাশির শিশু-কিশোরদের। লং-ড্রাইভ বা শর্ট-ড্রাইভ যাই হোক না কেন, অনেক ঘোরাঘুরি হবে। খাওয়া ও দাওয়া- দুটোরই প্রয়োজন পড়তে পারে। কেননা বদহজমের জন্য পেট খারাপ হবে। যাদের নিজের মুখের ওপর নিয়ন্ত্রণ আর পেটের ওপর বিশ্বাস নেই, তারা এখন থেকেই টেস্টি হজমি সঙ্গে রাখতে পারেন।

বৃষ (২১ এপ্রিল-২১ মে)

বৃষ রাশির গার্লফ্রেন্ড ও বয়ফ্রেন্ডদের জন্য সপ্তাহটি বেশ কষ্টকর। একে তো বৃষ রাশির মানুষ নিজ এলাকার বাইরের রিলেশন করে থাকে, তার ওপর তাদের মা-বাবা’রা একটু বেশি রক্ষণশীল। তাই ঈদের মধ্যে দেখা তাদের দেখা না হওয়ার সম্ভাবনাই বেশি। যদি হয় সেটাও ক্ষণিকের। যদি কেউ দেখা করা নিয়ে বাড়াবাড়ি করে, তবে ছাড়াছাড়ি হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা আছে।

মিথুন (২২ মে-২১ জুন)

মিথুন রাশির বয়স্ক ব্যক্তিদের এই সপ্তাহে অর্থবিয়োগ হবে। তবে পুরনো নোটের তুলনায় নতুনগুলো বিয়োগ হবে দ্রুত। আশার বাণী হলো, অর্থবিয়োগের তুলনায় অর্থযোগের পরিমাণ বেশি। ঘুষ, উপঢৌকন, উপহার-টুপহার ও বোনাস-টোনাস মিলিয়ে মার-মার-কাট-কাট অবস্থা আর কী! ‘আমরা সবাই যখন দালাল, তখন কিসের হারাম-হালাল।’

কর্কট (২২ জুন-২২ জুলাই)

কর্কট রাশির জাতক-জাতিকাদের মুখ একটু বেপরোয়া- একথা সবাই জানে। তবে এই সপ্তাহে মুখের পাশাপাশি তাদের পেটও বেপরোয়া হয়ে পড়বে। মুখ দিয়ে যেমন শ্রাব্য-অশ্রাব্য কথা বের করে, তেমনি খাদ্য-অখাদ্য সব ঢুকবে। আর বিপদে পড়বে পেট ‘বাবাজি’।

সিংহ (২৩ জুলাই-২৩ আগস্ট)

‘সিংহ বাবু’কে কাবু করতে যেমন বনের সব পশু ফন্দি-ফিকির করে, তেমনি এই সপ্তাহে সিংহ রাশিধারীদের কাবু করতে ব্যস্ত থাকবে অন্যরা। তাদের ইমেজ ড্যামেজ করার চেষ্টা চালাবে। ঘরে-বাইরে জ্বালাবে। তবে সফল হতে পারবে না। কারণ এই সপ্তাহে ‘সিংহ-সিংহী’দের এমন অবস্থা হবে যে তারা ঘর থেকেই বের হবে না। কারও হাত থাকবে পেটে, কারও চোখ থাকবে টিভির পর্দায়।

কন্যা (২৪ আগস্ট-২৩ সেপ্টেম্বর)

এই সপ্তাহে অর্থ ও অনর্থ উভয়দিক দিয়ে সবচেয়ে বেশি লাভবান হবে কন্যা রাশিধারীরা। ভাববেন না শুধু কন্যা রাশির মেয়েরা, ছেলেরাও। মেয়েদের দিকে যেমন চোখ থাকবে দুলাভাই, কম বয়সের বেয়াই, এবং ‘তো’ যুক্ত ভাইদের। তেমনি ছেলেদের দিকে চোখ থাকবে শালি, ভাবি ও বেয়াইনদের উপর। কিছু টাকা-পয়সা গেলেও লাভের পরিমাণ শূন্য হবে না।

তুলা (২৪ সেপ্টেম্বর-২৩ অক্টোবর)

আত্মভোলা তুলাদের এই সপ্তাহের অবস্থাও হবে বরাবরের মতোই। নিজের সবকিছুই ভুলে যাবে। আর এই জন্য বিপদে পড়তে হবে পার্টনারদের। বাকবিতণ্ডা এমনকি ‘হাত-বিতণ্ডা’ও লেগে যেতে পারে। ঘোরাঘুরি, সিনেমা দেখাসহ অনেক পরিকল্পনাই ভণ্ডুল হতে পারে। তবে মজার বিষয় হলো দিন শেষে ভালোবাসার পরিমাণ বাড়বে ছাড়া কমবে না।

বৃশ্চিক (২৪ অক্টোবর-২২ নভেম্বর)

এই সপ্তাহে আপনারা বেশকিছু ঝামেলা ও বিড়ম্বনার মুখোমুখি হবেন। যেমন বোতলের পানি খাওয়ার সময় মুখ না লাগিয়ে খেতে গিয়ে কাপড় ভিজে যাবে আপনার। খাবার খাওয়ার সময় তরকারির ঝোল নিজের ও অন্যের কাপড়েও ফেলবেন। হাঁটার সময় কাদা-পানি ছাড়াই পিছলে পড়ে যাবেন। অন্যের উপহাসের পাত্র হবেন আপনি। তাই চেষ্টা করবেন সবসময় একা থাকার।

ধনু (২৩ নভেম্বর-২১ ডিসেম্বর)

ধনুকে লক্ষ্য করে ছোড়ার মতো তীর আছে কারও ধনুকে? এখনও কেউ ধনু রাশির জাতক-জাতিকাদের দ্বি-পদ বিপদযুক্ত করতে পারেনি। এই সপ্তাহেও পারবে না। তবে চেষ্টা করবে। তাই সাবধান থাকা জরুরি। এই সপ্তাহে কাছের মানুষের চেয়ে দূরের মানুষের সঙ্গে মেলামেশা করাটাই ভালো হবে। কেননা কাছের মানুষই আপনার দুর্বলতাগুলো সম্পর্কে জানে।

মকর (২২ ডিসেম্বর-২০ জানুয়ারি)

এই সপ্তাহ সবচেয়ে ভালো কাটবে মকর রাশির রাজনীতিবিদের। কারণ ঈদ উপলক্ষে তারা নিজেদের এলাকায় যাবে। আর স্থানীয় সাহেব ও মোসাহেবদের প্রশংসার বৃষ্টিতে ভিজবেন। দলে দলে লোক আসবে আপনার সঙ্গে দেখা করতে। তাদের চা-পান-সিগারেটের টাকা আপনাকে দিতে হলেও মনে মনে খুব পুলকিত হবেন। সামনে আবার নির্বাচন। এতো লোকের আনাগোনা আপনাকে বেশ আশ্বস্ত করবে।

কুম্ভ (২১ জানুয়ারি-১৮ ফেব্রুয়ারি)

কুম্ভ রাশিধারীদের জন্য ঈদের এই সপ্তাহটি বেশ উৎকণ্ঠার। বিশেষ করে অভিনেতা-অভিনেত্রীদের জন্য। এবার ঈদে তাদের অভিনীত নাটক ও সিনেমাগুলোর দর্শকপ্রিয়তার ওপর নির্ভর করছে তাদের পরবর্তী কাজের অফার। তাই কুরবানি ঈদের আনন্দ তাদের অনেকের কুরবানি করতে হতে পারে। তবে নিজের চলনে-বলনে এই উৎকণ্ঠার ছাপ থাকবে না। অভিনয় করতে হবে বাস্তবেও।

মীন (১৯ ফেব্রুয়ারি-২০ মার্চ)

আশেপাশে যাই হোক মীন রাশিধারীরা তাদের দিন বেশ মাস্তি আর স্বস্তিতেই কাটায়। কারও সাথেও থাকে না, পাছে থাকে না। এই সপ্তাহেও তার ব্যতিক্রম হবে না। কুরবানির ঈদ তাদের ওপর বিশেষ প্রভাব বিস্তার করতে পারবে না। কী শুভ, কী অশুভ সব লগ্নেই তারা নিজেতে মগ্ন থাকবে। যাত্রা-অযাত্রা-মহাযাত্রার বেলাতেও তারা কোনও কিছুর ধার ধারে না।

রাশিফল মিলে যাওয়ার পুরোটাই নির্ভর করে নিজের ওপর। এই রাশিফল মিলে গেলে সব কৃতিত্ব জ্যোতিষীর অর্থাৎ আমার। আর না মিললে সব দায়দায়িত্ব পাঠকের অর্থাৎ আপনার। তবে এই রাশিফল কিন্তু পুরোপুরি মজা করার জন্যই লেখা!

-জ্যোতিষ সম্রাট অরু আচার্য্য

কে/কেএইচ/জেএইচ

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়