• ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৫ আশ্বিন ১৪২৫

এইচএসসিতে সফলতা

কোনও বাধাই দমিয়ে রাখতে পারেনি প্রতিবন্ধী স্নিগ্ধকে

স্টাফ রিপোর্টার, পটুয়াখালী
|  ২০ জুলাই ২০১৮, ১১:৪৩ | আপডেট : ২০ জুলাই ২০১৮, ১৩:১২
কোনও বাধাই দমিয়ে রাখতে পারেনি পটুয়াখালীর শারিরীক প্রতিবন্ধী এইচএসসি পরীক্ষার্থী রুবায়েত হাকিম স্নিগ্ধকে।

জীবন গড়ার দ্বিতীয় সিঁড়ি সাফল্যের সঙ্গে অতিক্রম করলেন এ প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী। বৃহস্পতিবার প্রকাশিত এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফলে শারিরীক প্রতিবন্ধী রুবায়েত হাকিম স্নিগ্ধ জিপিএ- ৩ পয়েন্ট ৭৫ লাভ করেছেন।

যার দু’হাতের কব্জিতে শক্তি নেই, যে হাটতে পারেন না এবং মুখ দিয়ে ঠিকভাবে কথা বলতে পারেন না, সেই প্রতিবন্ধী ছেলেটি ৩ পয়েন্ট ৭৫ লাভ করবেন, এমনটি ভাবতেও পারেননি কলেজের শিক্ষক ও তার বাবা-মাসহ অভিভাবকরা।  শুধু তা-ই নয়, স্নিগ্ধ তার মেধা ও মনোবল দিয়ে ধাপে ধাপে অর্জন করেছেন জেএসসি, এসএসসিসহ প্রতিটি সাফল্যের সিঁড়িও। তিনি এইচএসসিতেও সবাইকে অবাক করে দিয়ে এতো ভালো রেজাল্ট করেছেন।
--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন : জামালপুরে ট্রাক উল্টে নিহত ৩
--------------------------------------------------------

মেধাবী এই প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী রুবায়েত হাকিম স্নিগ্ধ পটুয়াখালী হাজী আক্কেল আলী হাওলাদার কলেজের মানবিক বিভাগের ছাত্র এবং তার পরীক্ষার কেন্দ্র ছিল পটুয়াখালী সরকারি কলেজ। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের পরীক্ষা বিধি অনুযায়ী প্রতিবন্ধী হওয়ায় নির্ধারিত সময়ের পরও ২০ মিনিট অতিরিক্ত সময় পেতেন তিনি।

রুবায়েত হাকিম স্নিগ্ধ ভাঙা ভাঙা কণ্ঠে বলেন, ‘আমি এতো ভালো রেজাল্ট করব ভাবিনি। সকলের দোয়া ও ভালবাসায় আমি ভালো রেজাল্ট করতে পেরেছি। আমি স্নাতক ডিগ্রিতে ভর্তি হতে চাই এবং ব্যাচেলার ডিগ্রি নিয়ে মানুষের সেবা করতে চাই। মানুষের সেবা করতে আমার খুব ভালো লাগে’।

স্নিগ্ধর বাসা পটুয়াখালী পৌর শহরের ৫নং ওয়ার্ডের পিটিআই সড়কে। দুই ভাইয়ের মধ্যে তিনি বড়। বাবা এম.এ হাকিম রংপুর পৌরসভায় একটি বেসরকারি সংস্থার প্রজেক্টে চাকরি করছেন এবং মা মোসা. রুবিনা হাকিম একজন গৃহিণী।

মা রুবিনা হাকিম বলেন, ‘আমার ছেলে হাটতে পারেনা, হাত দিয়ে তেমন লিখতে পারেনা এবং স্পস্ট করে ভালোভাবে কথাও বলতে পারেনা ঠিকই, তা সত্ত্বেও লেখাপড়ার প্রতি তার যথেষ্ট আগ্রহ ও ইচ্ছা রয়েছে। সে সব সময় বই নিয়ে থাকে। এইচএসসি’র রেজাল্টে আমি খুবই খুশি। এতো ভালো রেজাল্ট আশা করিনি। আপনারা সবাই আমার এ ছেলেটার জন্য দোয়া করবেন’।

হাজী আক্কেল আলী হাওলাদার কলেজের অধ্যক্ষ মাসুদ আলম বাবুল জানান, প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী স্নিগ্ধর সাফল্যে আমরা সবাই গর্বিত এবং আমার আত্মবিশ্বাস রুবায়েত হাকিম স্নিগ্ধক শত বাধা পেরিয়ে সে তার লক্ষ্যে পৌঁছবেই।

আরও পড়ুন :

জেএইচ

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়