• ঢাকা বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১১ আশ্বিন ১৪২৫

গৃহকর্তাকে বেঁধে লুটের মালামাল ভাগ করে ডাকাত দল

অনলাইন ডেস্ক
|  ১১ এপ্রিল ২০১৮, ২১:১৮ | আপডেট : ১১ এপ্রিল ২০১৮, ২২:৫১
ময়মনসিংহ জেলার গফরগাঁও উপজেলার মুখী গ্রামে ডাকাত দল গৃহকর্তাকে কুপিয়ে জখম করে তাকে বেঁধে রেখেই লুট করা মালামাল ভাগাভাগি করে। এরপর ফ্রিজ থেকে পানি পান করে ধীরে সুস্থে বাড়ি থেকে বের হয়ে যায়।

গতকাল মঙ্গলবার রাতে ডাকাত দল প্রথমে বাড়ির মালিক ৭৫ বছর বয়সী আবুল হাসেমকে কুপিয়ে জখম করে। পরে বৃদ্ধ দম্পতিকে বেঁধে রেখে ঘরে বসেই লুট করা স্বর্ণালংকার ও টাকা ভাগাভাগি করে।
--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন : রাঙামাটিতে ইউপিডিএফ সদস্যকে গুলি করে হত্যা
--------------------------------------------------------

আবুল হাসেমের ছেলে নজরুল ইসলাম বলেন, মঙ্গলবার দিবাগত রাত দুইটার দিকে ৮ থেকে ১০ জন ডাকাত হঠাৎ করেই তাদের বাড়িতে হানা দেয়। ডাকাতেরা গ্রিলের তালা ভেঙে ঘরে ঢোকে। তারা প্রথমে আবুল হাসেমকে কুপিয়ে জখম করে। পরে আবুল হাসেম ও তার স্ত্রীকে বেঁধে রাখে। এ সময় ডাকাতেরা ঘরে থাকা ৩০ হাজার টাকা, আনুমানিক দেড় লাখ টাকার স্বর্ণালংকার, দুটি মোবাইল ফোনসেট এবং কিছু নতুন জামাকাপড় লুট করে।  

নজরুল ইসলাম বলেন, রাতেই তার বাবা আবুল হাসেমকে গফরগাঁও উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসা নিয়ে তিনি বুধবার সকালে বাড়ি ফেরেন।

এদিকে গফরগাঁও থানা পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনাটি ডাকাতির বলে মনে হচ্ছে না। আসলে চুরি করতে গিয়ে চোরেরা গৃহকর্তাকে কুড়াল ও দা দিয়ে কুপিয়ে জখম করে।

গফরগাঁও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোখলেছুর রহমান বলেন, দুর্বৃত্তরা চুরি করতে গিয়ে আবুল হাসেমকে দা দিয়ে কুপিয়ে আহত করেছে। পুলিশ জড়িত ব্যক্তিদের খুঁজে বের করার চেষ্টা করছে।

আরও পড়ুন : 

এমকে

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়