• ঢাকা মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১০ আশ্বিন ১৪২৫

ইফতার মাহফিলে হামলা পরিকল্পিত: জাতীয় পার্টি

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি
|  ০১ জুন ২০১৮, ১৭:২৭ | আপডেট : ০১ জুন ২০১৮, ১৭:৪৭
ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা জাতীয় পার্টির (জাপা) ইফতার মাহফিলে হামলার ঘটনাকে পরিকল্পিত বলে দাবি করেছেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ (সরাইল ও আশুগঞ্জ) আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক জিয়াউল হক মৃধা।

শুক্রবার দুপুরে সরাইল-বিশ্বরোডস্থ লালশালুক রেস্টুরেন্টে সংবাদ সম্মেলন করে এ দাবি করেন তিনি। একই সাথে আগামী ৭২ ঘণ্টার মধ্যে হামলাকারীদের গ্রেপ্তার করে আইনের আওতায় আনারও আল্টিমেটাম দিয়েছেন তিনি।

সাংসদ জিয়াউল হক বলেন, হামলার ঘটনায় নিজ দলের বহিষ্কৃত নেতা ওয়াহেদুল হকের পাশাপাশি জেলা আওয়ামী লীগের এক প্রভাবশালী নেতাও দায়ী। প্রভাবশালী ওই নেতা সরাইল-আশুগঞ্জের নানা কর্মকাণ্ডে অবৈধ হস্তক্ষেপ করছেন।

--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন : শনিবার টুঙ্গিপাড়া যাবেন প্রধানমন্ত্রী
--------------------------------------------------------

হামলার সময় পুলিশের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলে জিয়াউল হক আরও বলেন, যখন আমার গাড়িটি ভাঙচুর করা হচ্ছিল তখন এক পুলিশ কর্মকর্তার গাড়ি সরিয়ে নেয়া হয়েছিল। এতেই বোঝা যায় এ হামলা পরিকল্পিত। দলের পক্ষ থেকে মামলা নিয়ে থানায় গেলেও পুলিশ মামলাটি রেকর্ড করছে না। আগামী ৭২ ঘণ্টার মধ্যে হামলার জড়িতদের গ্রেপ্তার করা না হয় তাহলে শান্তিপূর্ণ আন্দোলনের পাশাপাশি রাজপথ ও নৌপথ কর্মসূচি পালন করা হবে।

সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- জাপা চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের উপদেষ্টা রেজউল ইসলাম ভূইয়া, সরাইল উপজেলা জাপার সাবেক সাধারণ সম্পাদক হুমায়ূন কবির, আশুগঞ্জ উপজেলা জাপার সদস্য সচিব মিরাজ শিকদার প্রমুখ। এর আগে বৃহস্পতিবার ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরের লোকনাথদিঘির পাড়স্থ পৌর কমিউনিটি সেন্টারে আয়োজিত জেলা জাপার ইফতার মাহফিলে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর করে দুর্বৃত্তরা। এতে পণ্ড হয়ে যায় ইফতার মাহফিল। হামলায় জাপার অন্তত পাঁচ নেতাকর্মী আহত এবং সাংসদ মৃধার গাড়ি ভাঙচুর করা হয়।

পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়