• ঢাকা বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১১ আশ্বিন ১৪২৫

মাহমুদুল্লাহর ভিন্ন অভিষেক!

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ৩০ জানুয়ারি ২০১৮, ১৮:০৭ | আপডেট : ৩০ জানুয়ারি ২০১৮, ১৮:৪২
দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজের প্রথম ম্যাচে আগামীকাল বুধবার শ্রীলঙ্কার মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ দল। নতুন বছরে টাইগারদের প্রথম টেস্টে ভিন্ন রকম অভিষেক হতে যাচ্ছে অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের। দশম বাংলাদেশি ক্রিকেটার হিসেবে সাদা পোশাকে টাইগারদের নেতৃত্ব দিতে যাচ্ছেন এই তারকা ক্রিকেটার।

দলকে এর আগে কোন ফরম্যাটেই নেতৃত্ব দেননি মাহমুদুল্লাহ। তবে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) খুলনা টাইটান্স, চিটাগাং কিংসকে নেতৃত্ব দেয়ার অভিজ্ঞতা আছে তার।

তার নেতৃত্বে অবশ্য দলগুলো বিপিএলে ভালই করেছে। কিন্তু এবারই প্রথম বাংলাদেশ জাতীয় দলকে নেতৃত্ব দিতে যাচ্ছেন দলের সিনিয়র এই ক্রিকেটার। নিজের ৩৬তম টেস্টে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দলপতি হচ্ছেন তিনি।

প্রথম টেস্টে মাঠে নামার আগে আজ মঙ্গলবার সংবাদ সম্মেলনে এসেছিলেন নতুন এই অধিনায়ক। তিনি জানিয়েছেন, অধিনায়ক হিসেবে কোনো কিছুতে এক চুল পরিমাণও ছাড় দিবেন না। 

মাহমুদুল্লাহ বলেন, আমি অধিনায়ক হিসেবে কোন কিছুতে ছাড় দেই না। দলকে যা দেয়ার সেটা আমি দেই। সেটার জন্য কঠোর হয়ে হোক কিংবা উৎসাহ দিয়ে হোক, সব দিক থেকে চেষ্টা করব। মূল কথা হচ্ছে বাংলাদেশ দলকে ভালো কিছু দিতে হবে, এটাই আমাদের দায়িত্ব।

ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে চোট পেয়ে টেস্টের প্রথম ম্যাচ থেকে ছিটকে গেছেন দলের অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। এতে দলের হিসেব নিকেশই পাল্টে যায়। দলের ডেপুটি হিসেবে দায়িত্বে থাকা মাহমুদুল্লার কাঁধে আসে দায়িত্ব। পাশাপামি স্কোয়াডে রাখা হয়েছে মোট ছয়জন স্পিনার। 

--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন: ম্যানসিটির রক্ষণ ভাগের ব্যয় এত!
--------------------------------------------------------

এনিয়ে নতুন অধিনায়ক বলেন, আমরা আমাদের হোম কন্ডিশনে স্পিনারদের উপর ভরসা রাখি। আমাদের এই বিভাগটা বেশ ভালো, শক্ত। সাকিব নেই আমরা সেটা ব্যাকআপ করার চেষ্টা করবো।

একজন অধিনায়ক হিসেবে মাঠে গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নিতে হয়। তাই মাঠে নিজেকে সবসময়ই শান্ত রাখতে চান তিনি। 

অভিজ্ঞ এই ক্রিকেটার বলেন, মাঠে অধিনায়ক হিসেবে অনেক সিদ্ধান্তই নিতে হয়। আমার মনে হয় ওই সময় যদি নিজেকে শান্ত রাখা যায় তাহলে সিদ্ধান্ত নিতে সুবিধা হয়। আমি সবসময় এই জিনিসটা বিশ্বাস করি। আপনি যদি মাথা ঠাণ্ডা রাখেন তাহলে সিদ্ধান্ত নিতে সুবিধা হয়। আমি ঘরোয়া ক্রিকেটেও অধিনায়ক হিসেবে সেটাই করে থাকি। আমার মনে হয় এটা সিদ্ধান্ত গ্রহণে সাহায্য করে। আমার চেষ্টা থাকবে দলকে উৎসাহ দেয়া ও পারফরমেন্স ধরে রাখা।

আরও পড়ুন: 

ওয়াই/এমকে

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়