logo
  • ঢাকা শনিবার, ২০ জুলাই ২০১৯, ৫ শ্রাবণ ১৪২৬
evaly

মাশরাফি ভাইকে নিয়ে বাজে মন্তব্য করা অনায্য: তামিম

স্পোর্টস ডেস্ক, আরটিভি অনলাইন
|  ১৫ জুন ২০১৯, ২০:২১ | আপডেট : ১৫ জুন ২০১৯, ২০:২৫
ছবি- সংগৃহীত
দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে জয় দিয়ে বাংলাদেশের বিশ্বকাপ শুরু হয়েছিল রাজকীয় ভাবে। এরপর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষেও প্রায় জিতেই গিয়েছিল বাংলাদেশ কিন্তু অল্পের জন্য হেরে যায়। অল্প আর বেশি ব্যবধানে হারা, হার তো হারই। এরপর ইংল্যান্ডের বিপক্ষে হেরে খানিক চাপে পড়ে গেছে বাংলাদেশ।

এই চাপের সঙ্গে যুক্ত হয়েছে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ম্যাচটি পরিত্যক্ত হওয়ায়। সব মিলে বাংলাদেশ দল এখন খাদের কিনারায়। সেমিফাইনালে খেলতে হলে বাকি ৫ ম্যাচের চারটিতেই জিততে হবে!

তবে সব ছাপিয়ে সমালোচনার তীর বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজার দিকেই। এর কারণ হিসেবে বলা হচ্ছে নিউজিল্যান্ড আর ইংল্যান্ডের বিপক্ষে মাশরাফি কেন ১০ ওভার শেষ করেননি?

শুধু মাশরাফি একা নন, তামিমকেও তোলা হচ্ছে সমালোচনার পাল্লায়। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম থেকে শুরু করে বিদেশি গণমাধ্যমে সাবেক ক্রিকেটারদেরও মুখরোচক আলোচনা এখন মাশরাফি-তামিমরা।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ম্যাচকে সামনে রেখে টনটনে পুরোদস্তুর অনুশীলনে ব্যস্ত বাংলাদেশ দল। যেখানে আলোচনা-সমালোচনার ছিটেফোটাও নেই। সবাই নিজের কাজটা সারছেন মন দিয়ে। অনুশীলন শেষে গণমাধ্যমের মুখোমুখি হন তামিম ইকবাল। সেখানেও তামিমকে ছোড়া হয় মাশরাফিকে নিয়ে প্রশ্ন। এমন প্রশ্নে উল্টো প্রশ্ন ছুঁড়েন তামিম।

‘এসব কথা কারা বলে? এটা হলো গুরুত্বপূর্ণ। আমি আমার কথাটা বাদ দেই, মাশরাফি ভাইয়ের কথাটাই ধরি। যারা ওনাকে নিয়ে লিখছে বা আলোচনা করছে। তারা ওসব লেখা বা বলার আগে যদি দুইটা মিনিট একটু চিন্তা করে যে আমি কার ব্যাপারে বলছি। সে কি করেছে বাংলাদেশের ক্রিকেটের জন্য গত ১৫-১৬ বছর ধরে।’

তামিম ইকবালের মতে বাংলাদেশ ক্রিকেটের এতোদূর আসার পেছনে পুরোটা মাশরাফির অবদান। আর আমরা তাকে নিয়েই সমালোচনায় মেতেছি। উনি যা করেছেন সে অনুযায়ী তাকে সম্মান দিচ্ছি না আমরা।

‘বলতে পারেন সে তো আনফিট। সে যদি আনফিট হয় তাহলে গত ১০ বছর থেকেই তো আনফিট থেকে খেলেছেন। তখন কিন্তু ইমোশনালি নিয়েছি। আর এখন একটু উনিশ-বিশ হচ্ছে বলে এটাকে অনেক বড় করে দেখছি। কাজেই এমন একটা ব্যক্তির ব্যাপারে আমরা কথা বলছি যে ওই ব্যক্তির হাত ধরেই কিন্তু আমাদের এখানে আসা। দল হিসেবে তো বটেই, ব্যক্তিগতভাবে আমি নিজেও। ওনার ব্যাপারে এইরকমের মন্তব্য করা এবং এসব নিয়ে আলোচনা করে আসলে খুব অন্যায্য। আমার মনে হয় উনি যা পাচ্ছেন তার চেয়ে বেশি শ্রদ্ধার দাবি করেন।’

দেশের বাইরের সাবেক ক্রিকেটারদের সমালোচনায় কান দিতেও নিষেধ করেন দেশসেরা এই ওপেনার। যে ক্রিকেটার তাকে নিয়ে সমালোচনা করছেন তারও একবার ভাববার অনুরোধ, আমি কতটুকু দিয়েছি দেশকে।

‘কে কি বলছে এটা গুরুত্বপূর্ণ না। তারা তাদের মতো মতামত দিতে পারে। কিন্তু দেশের মানুষের বোঝা উচিত যখন মাশরাফি বিন মুর্তজাকে নিয়ে কথা বলছি,  ভাবতে হবে সে কত কি করেছে দেশের জন্য।’

উল্লেখ্য, কদিন আগে মাশরাফিকে নিয়ে মন্তব্য করেছিলেন ভারতের সাবেক ক্রিকেটার অজিত আগারকার।

এমআর/পি

evaly
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়