logo
  • ঢাকা সোমবার, ২২ জুলাই ২০১৯, ৭ শ্রাবণ ১৪২৬
evaly

আমার বিশ্বাস, এই দল সেরাটা দিবে: মাশরাফি

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ২৯ এপ্রিল ২০১৯, ১৪:৪০ | আপডেট : ২৯ এপ্রিল ২০১৯, ১৪:৫৮
মাশরাফি বিন মুর্তজা
আগে আয়ারল্যান্ড সফর, এরপর বিশ্বকাপ। সব মিলে প্রায় দুই মাসের লম্বা সফর। বিশ্বকাপের আগে ত্রিদেশীয় সিরিজের জন্য ১৭ সদস্যের দলের সঙ্গে যোগ হয়েছে আরও দুইজন। আয়ারল্যান্ডে দুই দলের সঙ্গে খেলতে হবে চার ম্যাচ। যদি ফাইনালে খেলা হয় তাহলে আরও এক ম্যাচ বাড়বে। যে কারণেই চাপ নিতে চায়নি টিম ম্যানেজমেন্ট।

সোমবার মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সাংবাদিকদের মুখোমুখি মাশরাফি বিন মুতর্জা।

বাংলাদেশ অধিনায়কের কাছে জানতে চাওয়া হয়, এই সিরিজ দিয়ে সাজাতে হবে বিশ্বকাপের পরিকল্পনা। ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় মঞ্চে নামার আগে কতটা উপযোগী হবে ত্রিদেশীয় সিরিজ?

‘এই সিরিজ কতটা সাহায্য করবে আমাদের সেটা স্পষ্ট করে বলতে পারছি না। গতবার চ্যাম্পিয়নস ট্রফির আগে আয়ারল্যান্ডেই সিরিজ খেলে গিয়েছিলাম। যাওয়ার পর পেয়েছি ভিন্ন উইকেট। একদমই ভিন্ন উইকেট ছিল। আশা করবো যে উইকেট প্রায় একই থাকবে। কারণ, আমরা তো এই সিরিজটাকেই প্রস্তুতি হিসেবে নিয়েছি।’

দলে পাঁচ জন আছে যাদের বর্তমান সময়ে বাংলাদেশ দলের সেরা বা অভিজ্ঞ খেলোয়াড় হিসেবেই ধরা হয়। এদের সামর্থ্য আছে যেকোনও মুহূর্তে দলকে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেয়ার। তাদের ছাড়াও যারা প্রথম বা দ্বিতীয়বার বিশ্বকাপ খেলতে যাচ্ছে।

‘আমি মনে করি, এই দলটা গত কয়েক বছর ধরে একসাথে খেলছে। ফর্ম ইন-আউট থাকবে। তার মানে এই না যে, তাকে ছোট করে দেখা। আমি এটা বলবো না যে, সৌম্য ডিপিএলে শেষ দুই ম্যাচে ভালো দুইটা ইনিংস খেলেছে। তার মানে সে পুরোপুরি ফর্মে ফিরেছে আমি এটা বলবো না। ও গত বিশ্বকাপেও অসাধারণ খেলেছিল। তখন তো বিশ্বকাপ খেলার অভিজ্ঞতা ছিল না। এবারতো সেটাও আছে। মাঝে চার বছর অনেক খেলেছে। আমি আশা করি, এবারও সে ভালো খেলবে।’

বিশ্বকাপের দলে থাকা কয়েকজনকে নিয়ে সমালোচনা আছে। যেমন লিটন দাস, সৌম্য সরকার বা সাব্বির রহমান। অধিনায়ক আস্থা রেখেছেন তাদের উপর।

‘তামিম আমাদের দলের সেরা ব্যাটসম্যান। ও টিকে গেলে তিনশ রানও পার হয়ে যায়। ও যদি ৪০ ওভার খেলতে পারে এরপর বাকি ১০ ওভারে দ্রুত রান উঠাতে হয়। যেটা অন্য দলের খেলোয়াড়রা সহজেই করে। আমাদেরও এমন ব্যাটসম্যান আছে। লিটন, সাব্বির এদের বলেই দেয়া হয় ফ্রি খেলতে। তাদের সেই সামর্থ্যও আছে। এর মানে এই না যে, ফ্রি খেলতে গিয়ে আউট হয়ে যাবে। অবশ্যই তাদেরও দায়িত্ব নিয়ে খেলতে হবে।

দলে যাদের জায়গা হয়েছে তাদের উপর পূর্ণ আস্থা রয়েছে বলেও জানান বাংলাদেশ অধিনায়ক।

‘একটা দল খেলতে গেলে কিছু ভুল হতেই পারে। তবে দল হিসেবে খেলতে গেলে এসব ভুলে নিজেদের সেরাটা দিতে হয়। আমাদের এটুকু মাথায় রেখে খেলতে পারলেই হবে। আমার বিশ্বাস, যারা আছে তারা সেরাটাই দিবে।’

এমআর/ওয়াই

evaly
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়