• ঢাকা রবিবার, ২৪ মার্চ ২০১৯, ১০ চৈত্র ১৪২৫

রানপ্রসবা স্টেডিয়াম ট্রেন্টব্রিজ

স্পোর্টস ডেস্ক, আরটিভি অনলাইন
|  ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১০:২৪ | আপডেট : ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৬:৪৮

নটিংহ্যামশায়ারের ওয়েস্ট ব্রিজফোর্ড এলাকায় অবস্থিত। ১৮৩০ সালে এই মাঠটি প্রতিষ্ঠিত হয়। ট্রেন্ট নদী ও এর উপর সংযোগকারী ব্রিজ থেকে এর নামকরণ করা হয়েছে। বিশিষ্ট ব্যবসায়ী স্যার জুলিয়েন ক্যানের ব্যক্তিগত মাঠ ছিল এটি।

ইংলিশ কাউন্টি ক্লাব নটিংহামশায়ারের নিজস্ব মাঠ এটি। ১৮৩০ সাল থেকে এটি ক্রিকেট মাঠ হিসেবে ব্যবহৃত হয়ে আসছে। ১৮৪১ সালে এ মাঠের স্বত্বাধিকারী উইলিয়াম ক্লার্ক এটিকে উদ্বোধন করেন। পাশাপাশি নিজেকে অল ইংল্যান্ড টিমের অধিনায়ক ঘোষণা করেন। 

১৮৯৯ সালের ১ জুন অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যান্ডের টেস্ট ম্যাচটিই এ মাঠের প্রথম ম্যাচ। ১৯৭৪ সালের ৩১ আগস্ট পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে ওয়ানডে ম্যাচের যাত্রা শুরু। ২০০৯ সালের ৬ জুন বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যকার ম্যাচ দিয়ে অনুষ্ঠিত হয় প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচ। ১৯৯০ সালে রাশক্লিফ স্যুইটের পরিবর্তে নিউ উইলিয়াম ক্লার্ক স্ট্যান্ড নামকরণ করা হয়। 

এ মাঠে ২০০৯ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দক্ষিণ আফ্রিকা ও পাকিস্তানের মধ্যকার সেমিফাইনাল ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হয়। 

এর দর্শক ধারণ ক্ষমতা কিয়া ওভাল থেকেও কম। একসঙ্গে ১৭ হাজার ৫০০ জন দর্শক মাঠে বসে খেলা দেখতে পারবেন। 

আসন্ন ২০১৯ সালের বিশ্বকাপে ট্রেন্টব্রিজে অনুষ্ঠিত হবে পাঁচটি ম্যাচ।

এখানে বিশ্বকাপের দ্বিতীয় ম্যাচে ৩১ মে মুখোমুখি হবে পাকিস্তান-উইন্ডিজ। এছাড়া ৩ জুন বিশ্বকাপের ৬ষ্ঠ ম্যাচে স্বাগতিক ইংল্যান্ড পাকিস্তানের বিপক্ষে, ৬ জুন বিশ্বকাপের ১০ম ম্যাচে অস্ট্রেলিয়া-উইন্ডিজের বিপক্ষে, ১৩ জুন বিশ্বকাপের ১৮তম ম্যাচে ভারত-নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে এবং ২০ জুন বিশ্বকাপের ২৬তম ম্যাচে অস্ট্রেলিয়া-বাংলাদেশের বিরুদ্ধে মুখোমুখি হবে।

৪৪টি ওয়ানডে ম্যাচ এখানে অনুষ্ঠিত হয়েছে। আগে ব্যাট করে জয়ী হয়েছে ১৮টি ম্যাচ। আগে বল করে জয়ী হয়েছে ২৩টি ম্যাচে।

প্রথম ইনিংসে গড় রান ২৫০ আর দ্বিতীয় ইনিংসের গড় রান ২১৬। এই মাঠে সর্বোচ্চ রান ৫ উইকেটে ৪৮১ রান। আর সর্বনিম্ন ৮৩ রান। সর্বোচ্চ ৩৫০ রান তাড়া করে জয়ের রেকর্ড রয়েছে এ মাঠে। সর্বনিম্ন ১৯৫ রান করেও জয়ের রেকর্ড রয়েছে এখানে। 

এএ/পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়