• ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০১৯, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬

চ্যালেঞ্জ নিতে ভালো লাগে: সাকিব

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ২১ ডিসেম্বর ২০১৮, ১২:৪০ | আপডেট : ২১ ডিসেম্বর ২০১৮, ১২:৫২
টেস্ট আর ওয়ানডে সিরিজ জিতে উড়তে থাকা বাংলাদেশকে ক্যারিবীয়রা মাটিতে নামিয়ে এনেছিল টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথম ম্যাচে। টাইগারদের অমন পারফরম্যান্স যেন তারই ইঙ্গিত। ব্যাটে-বলে হতাশ করেছিল সাকিব আল হাসান ছাড়া বাকি সবাই। তাতে কিছুটা শঙ্কা ছিল, টি-টোয়েন্টি সিরিজে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নদের সামনে দাঁড়াতে পারবে তো টাইগাররা!

whirpool
এ বছরের শুরুতেও এই ক্যারিবীয়দের সঙ্গে তাদের মাটিতে টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলেছিল টাইগাররা। সেখানেও প্রথম ম্যাচে হার দিয়ে শুরু হয়েছিল কিন্তু ঠিকই পরের দুই ম্যাচ জিতে সিরিজ নিজেদের করে নিয়েছিল। এবার তো ঘরের মাঠে খেলা। টানা দুই ফরম্যাটে দুই সিরিজ জিতে মানসিকভাবেও এগিয়ে আছে বাংলাদেশ।

এবারও শুরু প্রথম ম্যাচে হেরে তবে জয় এসেছে দ্বিতীয় ম্যাচে। বাকি আছে সিরিজের তৃতীয় ও শেষ ম্যাচ। এই ম্যাচটা জিতলেই নিজেদের ক্রিকেট ইতিহাসে তিন ফরম্যাটে টানা তিন সিরিজ জিতবে বাংলাদেশ।

বিপক্ষ দল যখন টি-টোয়েন্টির বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা, চ্যালেঞ্জ তখন বাধ্য হয়েই নিতে হয়। প্রথম ম্যাচ হেরে সৌম্য সরকারও বলেছিলেন, আমরা চ্যালেঞ্জ নিতে প্রস্তুত।

চ্যালেঞ্জটা ঠিকই নিতে পেরেছে বলা যায় তাই জয়টাও এসেছে। গতকাল ম্যাচ শেষে সাকিবও গাইলেন সৌম্যর সুরে।

‘চ্যালেঞ্জ থাকলে চ্যালেঞ্জটা নিতে ভালো লাগে। চেষ্টা থাকে দলের জন্য কট্রিবিউট করার। যদি হয় ভালো না হলে অনেক সময় দেখতে খারাপ লাগে, তবে সবসময় চেষ্টা থাকে।’

দলের জয়ে অবদান রাখার পাশাপাশি নিজেও একটা রেকর্ড করেছেন সাকিব। আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে প্রথমবারের মতো পেয়েছেন পাঁচ উইকেট। যা তার এখন পর্যন্ত ক্যারিয়ার সেরা বোলিং।

এ নিয়ে সাকিব বলেন, আমি সবসময় যেটা বলি অবদান রাখতে পারলে ভালো লাগে। আজকে যেহেতু বড় পরিসরে করতে পেরেছি অবশ্যই ফিলিংসটা একটু বেটার। এরকম কন্ডিশনেও আমি আশা করি নাই ৫ উইকেট পেয়ে যাব। আসলে উইকেট পাওয়া একটু ভাগ্যের ব্যাপার। আরেকটা জিনিস যেটা আছে আমার কাজটা করতে হবে, আর ভাগ্য সাথে থাকাটা জরুরি। তো দুইটাই আজকে ছিল।

এমআর/ এমকে 

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়

আজকের প্রশ্ন :

  • হ্যাঁ
    ক্লিক করুন
  • না
    ক্লিক করুন
  • মন্তব্য নেই
    ক্লিক করুন
মোট ভোট সংখ্যা : ২১