Mir cement
logo
  • ঢাকা রোববার, ২০ জুন ২০২১, ৬ আষাঢ় ১৪২৮

স্পোর্টস ডেস্ক, আরটিভি নিউজ

  ০৬ জুন ২০২১, ১৭:১২
আপডেট : ০৬ জুন ২০২১, ১৭:১৪

‘ভালো ক্রিকেটার হতে সিক্স-প্যাক লাগে না’

আজম খান

ক্রিকেটে ফিটনেসের গুরুত্ব অনেক। ফিটনেসের দোহাই দিয়ে অনেক ভালো ক্রিকেটারও আঁটকে দেয়া হয় ম্যাচ খেলতে। তবে সেসব জয় করেছেন উইন্ডিজের রাকিম কর্নওয়াল কিংবা পাকিস্তানের আজম খান।

দুজনেরই ওজন একশ’র উপর। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে রাকিমের অভিষেক হয়েছে আগেই। এবার অভিষেক হতে যাচ্ছে পাকিস্তানের সাবেক উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান মঈন খানের ছেলে আজম খানের।

১৩০ কেজির দীর্ঘদেহী আজম গত এক বছরে কমিয়ে ফেলেন ৩০ কেজি। সঙ্গে ঘরোয়া লিগে দুর্দান্ত পারফর্ম নজর কাড়ে নির্বাচকদের। তাতেই কী না সুযোগ পেয়ে গেছেন পাকিস্তানের ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরের ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি দলে।

এ নিয়ে যেমন অভিনন্দনের জোয়ারে ভাসছেন আজম, তেমনই অনেক হাসাহাসিও হচ্ছে। এ সময় আজমের পাশে এসে দাঁড়িয়েছেন আজমের কোয়েট্টা গ্ল্যাডিয়েটরসের সতীর্থ ও দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক অধিনায়ক ফাফ দু প্লেসিস।

সম্প্রতি ক্রিকেট পাকিস্তানকে দেয়া সাক্ষাতকারে আজমকে নিয়ে প্লেসিস বলেন, ‘‘ভালো ক্রিকেটার হতে হলে স্কিলটাই বেশি জরুরী। লাগে শক্তিও। তবে আমরা যে ফিটনেস বা সিক্স-প্যাকের কথা বলি সেটা মোটেই জরুরী নয়।’’

দু প্লেসি আরও বলেন, “সে অনেক ভালো হিটার। যদিও আমি তাকে খুব বেশি দেখিনি তবে কয়েকটা ম্যাচে ওর সঙ্গে আমার ব্যাটিং করা হয়েছে। সেখানে সে একটা হাফ-সেঞ্চুরিও পেয়েছিল। পাওয়ার হিটারের সব গুনই ওর মাঝে আমি দেখেছি। বাকি ম্যাচগুলোতে আমি ওর উপর চোখ রাখব। ওকে সাহায্য করব যতটা প্রয়োজন।”

ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে আজম খান ৩৬টি ম্যাচে ১৫৭.৪১ স্ট্রাইকরেটে করেন ৭৪৩ রান। পিএসএলে স্থগিত হওয়া আসরে ১৪৪ এর বেশি স্ট্রাইক রেটে ব্যাট করেছেন কোয়েট্টা গ্ল্যাডিয়েটরসের হয়ে।

এমআর/

RTV Drama
RTVPLUS