logo
  • ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারি ২০২১, ৭ মাঘ ১৪২৭

রাজবাড়ীর একমাত্র সরকারি হাঁস-মুরগীর খামারের বেহাল দশা (ভিডিও)

অব্যবস্থাপনা আর সংস্কারের অভাবে রাজবাড়ীর একমাত্র সরকারি হাঁস-মুরগীর খামারের বেহাল দশা। প্রায় এক যুগ ধরে এ খামারে বন্ধ রয়েছে হাঁস-মুরগির বাচ্চা উৎপাদন। এছাড়া জরাজীর্ণ শেডসহ রয়েছে জনবলের তীব্র সংকট। ফলে কয়েক কোটি টাকার সরকারি সম্পদ নষ্ট হচ্ছে বলে অভিযোগ স্থানীয়দের। অন্যদিকে খামারটি দ্রুত সংস্কারের আশ্বাস দিয়েছে প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তর। 

১৯৮২ সালে রাজবাড়ী শহরের ভবানীপুর এলাকায় তিন একর জায়গার ওপর চারটি শেড দিয়ে প্রতিষ্ঠিত হয় এই খামারটি। সরকারি এই খামারে প্রশাসনিক ভবন, ব্যবস্থাপকের বাসভবন অতিথিকক্ষ বিক্রয় কেন্দ্রসহ রয়েছে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের আবাসিক ভবনও।

তবে স্থানীয়দের অভিযোগ নামেমাত্র চলছে খামারটি। হাঁস-মুরগির উৎপাদন বন্ধ থাকায় পূরণ হচ্ছে না ডিম ও মাংসের চাহিদা। এছাড়া সংস্কারের অভাবে খামারের অধিকাংশ স্থাপনাই ব্যবহারের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে।

স্থানীয়রা বলেন, আমরা চাই হাঁস-মুরগী চাষ ভালো মতো হোক, যাতে আমিষ প্রোটিন ভালো মতো পাই। বাস ট্রাক রাখার জায়গায় এখানে মুরগী ফার্ম তো নেই। 
অন্যদিকে জনবল সংকটের কারণে কার্যক্রম ব্যাহত হচ্ছে বলে জানান খামারের কর্মকর্তারা। আর খামারটি মেরামতের জন্য প্রকল্প গ্রহণ করেছে বলে জানান প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের এক কর্মকর্তা। 

রাজবাড়ী সদর উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা. খায়ের উদ্দীন আহম্মেদ বলেন, গণপূর্তের নির্বাহী প্রকৌশলীর সাথে দেখা করে আমরা একটি প্রাকপ্লান তৈরিতে ওনার সহযোগিতা চেয়েছি। সেটি তৈরি হলে আমরা প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তর ঢাকাতে পাঠাবো। আশা করি খুব দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

রাজবাড়ীর সরকারি হাঁস-মুরগী খামারের পোল্ট্রি টেকনিশিয়ান ইকবাল হোসেন বলেন, তিন শেড আছে। দুটি নষ্ট ও একটি ভালো আছে। আর এখানে জনবল কম। যার কারণে কাজ করতে কষ্ট হয়। 
জিএম/পি
 

RTV Drama
RTVPLUS