বঙ্গবন্ধু নিয়ে কোনও বিতর্ক চলবে না : ড. কামাল

প্রকাশ | ৩১ মার্চ ২০১৯, ২৩:২৪ | আপডেট: ০১ এপ্রিল ২০১৯, ০৮:৩২

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট

আমাদের দলীয় সংকীর্ণতার ঊর্ধ্বে থাকতে হবে। বঙ্গবন্ধু বিষয়ে বিতর্কের কোনও অবকাশ নেই। তিনি মর্যাদা নিয়ে এখনও আছেন এবং থাকবেন। তাকে নিয়ে বিতর্ক থাকতে পারে না। বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বেই মুক্তিযুদ্ধ হয়েছিল, তাই তাকে নিয়ে কোনও বিতর্ক চলবে না। জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের আহ্বায়ক ড. কামাল হোসেন।

আজ রোববার সন্ধ্যায় জাতীয় প্রেসক্লাবে মহান স্বাধীনতা দিবস উলক্ষে খালেদা জিয়ার মুক্তি ও নতুন জাতীয় সংসদ নির্বাচনের দাবিতে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

বক্তব্যের এক পর্যায়ে জিয়াকে স্বাধীনতার ঘোষক না বলায় ড. কামালের প্রতি বিএনপি নেতাকর্মীরা ক্ষোভ প্রকাশ করে বিভিন্ন স্লোগানসহ চিৎকার চেঁচামেচি করতে থাকে।

এ সময় তিনি ক্ষুব্ধ কন্ঠে বলেন, আমি আর কোনও কথাই বলব না।

ড. কামাল হোসেনের বক্তব্যের এক পর্যায়ে দর্শক সারি থেকে বিএনপির নেতাকর্মীরা স্লোগান দিতে থাকে স্বাধীনতার ঘোষক জিয়া লও লও লও সালাম। তাদের এ স্লোগানের সময় বিরক্ত হয়ে ড. কামাল হোসেন তার বক্তব্য থামিয়ে মাইকের সামনে দাঁড়িয়ে থাকেন।

এ সময় দর্শক সারি থেকে এক নেতা বলেন, জিয়াউর রহমান স্বাধীনতার ঘোষণা দিয়েছেন এ কথা আপনাকে বলতে হবে।

এক পর্যায়ে স্লোগান বন্ধ হলে ড. কামাল বলেন, দলীয় দৃষ্টিভঙ্গি থেকে সবাইকে বের হয়ে আসতে হবে। এখানে সবাই বলেছেন, তাদেরকে (খালেদা জিয়াসহ রাজবন্দি) অন্যায়ভাবে বন্দি করে রাখা হয়েছে। আমিও তাদের মুক্তির ব্যাপারটি পুরোপুরি সমর্থন করি। আমি মনে করি, সবাই ঐক্যবদ্ধ হলে এটা আমরা অর্জন করতে পারবো। দেশে প্রকৃত অর্থে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করতে পারবো। এটা হলে জনগণ ক্ষমতার মালিক হিসেবে যে ভূমিকা রাখার কথা তা রাখতে পারবে।

তিনি বলেন, যাদের অন্যায়ভাবে বন্দি করে রাখা হয়েছে তাদের সবাইকে মুক্ত করা হোক। এ ব্যাপারে দ্বিমতের অবকাশ নেই। এই লক্ষ্য অর্জন করতে হলে আমাদের ঐক্যকে আরও সুসংহত করতে হবে। ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের জন্য ঝাঁপিয়ে পড়তে হবে।

কামাল হোসেনের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, জেএসডির সভাপতি আ স ম আবদুল রব, নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. মঈন খান, গণফোরামের নির্বাহী সভাপতি সুব্রত চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা মহসিন মন্টু বক্তব্য রাখেন।

এমসি/জেএইচ