logo
  • ঢাকা শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ৪ বৈশাখ ১৪২৮

হ্যাক নয় স্ক্র্যাপিং হয়েছিল: ফেসবুক

Facebook says data from 530M users was obtained by scraping, not hack
সংগৃহীত

বিশ্বজুড়ে সম্প্রতি ফেসবুক ব্যবহারকারীদের আইডি হ্যাক করে তথ্য ফাঁসের ঘটনা ঘটেছে। সে বিষয়ে ব্যাখ্যা দিয়েছে ফেসবুক। সংস্থাটি বলছে, ফেসবুক হ্যাক হয়নি বরং স্ক্র্যাপিংয়ের মাধ্যমে খুবই সাধারণ কিছু তথ্য তৃতীয় পক্ষের হাতে গেছে।

আর এটা ২০১৯ সালের সেপ্টেম্বরের আগে ঘটেছে বলে জানিয়েছে সংস্থাটি। এ নিয়ে আগেও সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে বলেও জানায় সামাজিক যোগাযোগের জনপ্রিয় এই মাধ্যমটি। মঙ্গলবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এমনটাই দাবি করেছে ফেসবুক।

ফেসবুকের প্রোডাক্ট ম্যানেজমেন্ট ডিরেক্টর মাইক ক্লার্ক বলেন, ৫৩ কোটি ফেসবুক ব্যবহারকারীর তথ্য ফাঁস হয়েছে- এমন শিরোনামে বিজনেস ইনসাইডারের সংবাদটি আসলে সাম্প্রতিক সময়ের নয়, এটি পুরনো ঘটনা। আমরা এ বিষয়ে কাজ করেছি এবং করছি। ২০১৯ সালের সেপ্টেম্বরের আগেই স্ক্র্যাপিংয়ের ঘটনা ঘটেছিল, এ নিয়ে খবরও প্রকাশিত হয়েছিল।

মাইক ক্লার্ক স্ক্র্যাপিংয়ের ব্যাখ্যাও দিয়েছেন। তিনি বলেন, স্ক্র্যাপিং খুবই সাধারণ এবং নিয়মিত ঘটনা। এর মাধ্যমে একটি সফটওয়্যারের মাধ্যমে ইন্টারনেট থেকে ব্যবহারকারীদের সাধারণ কিছু তথ্য সংগ্রহ করা হয়। আর এগুলো হচ্ছে ব্যবহারকারীর প্রকাশ্য তথ্য। পরে সেগুলোই বিভিন্ন অনলাইন প্ল্যাটফর্মে শেয়ার করা হয়।

এদিকে যেসব প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে স্ক্র্যাপিং করা হয়েছিল সেগুলো সরিয়ে ফেলা হয়েছে বলেও দাবি করেছে ফেসবুক। আর ফেসবুক ব্যবহারকারীদের আইডি নিরাপদ আছে বলেও জানান তিনি। তবে বাড়তি সতর্কতা হিসেবে অ্যাকাউন্টে আরও নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণের পরামর্শ দেন মাইক ক্লার্ক।

RTV Drama
RTVPLUS