মারা গেলেন কম্পিউটার মাউসের সহ-উদ্ভাবক উইলিয়াম ইংলিশ 

প্রকাশ | ০৪ আগস্ট ২০২০, ২০:৩২ | আপডেট: ০৪ আগস্ট ২০২০, ২০:৩৯

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক, আরটিভি নিউজ
মাউস ও এর সহ-উদ্ভাবক উইলিয়াম ইংলিশ।

কম্পিউটার মাউসের সহ-উদ্ভাবক উইলিয়াম ইংলিশ মারা গেছেন। গত ২৬ জুলাই ক্যালিফোর্নিয়ায় সান রাফায়েলে শ্বাসকষ্টজনিত কারণে তিনি মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৯১ বছর। খবর দ্য ফিন্যান্সিয়াল এক্সপ্রেস ও নিউইয়র্ক টাইমস। 

যুক্তরাষ্ট্রের কেনটাকি অঙ্গরাজ্যে ১৯২৯ সালে জন্ম নিয়েছিলেন এই প্রকৌশলী ও উদ্ভাবক। মার্কিন নেভিতে যোগ দেওয়ার আগে বিশ্ববিদ্যালয়ে বৈদ্যুতিক প্রকৌশল নিয়ে পড়ালেখা করেন তিনি।

প্রথম মাউস ১৯৬৩ সালে তৈরির কৃতিত্ব তার। মাউসের ধারণা অবশ্য তাঁর নয়, সহকর্মী ডগলাস অ্যাঙ্গেলবার্টের। দুজনেই ওই সময়টিতে প্রাথমিক কম্পিউটিং নিয়ে কাজ করছিলেন। ইংলিশ শুধু মাউসের সহ-উদ্ভাবক নন, প্রথম মাউস ব্যবহারকারীও তিনি। স্ট্যানফোর্ড রিসার্চ ইনস্টিটিউটে অ্যাঙ্গেলবার্টের গবেষণা প্রকল্পের অধীনে প্রথম মাউসটি তৈরি করেন তিনি। ধারণা অ্যাঙ্গেলবার্টের থাকলেও পুরো কারিগরি কাজটিই নিজে করেছিলেন ইংলিশ। উদ্ভাবক অ্যাঙ্গেলবার্ট মারা যান ২০১৩ সালে, ৮৮ বছর বয়সে।

নিউইয়র্ক টাইমস জানায়, ১৯৫০ এর দশকের শেষের দিকে, নৌবাহিনীতে কর্মজীবন ছেড়ে যাওয়ার পরে মি. ইংলিশ স্ট্যানফোর্ড রিসার্চ ইনস্টিটিউট বা এসআর.আই নামে একটি উত্তর ক্যালিফোর্নিয়ার গবেষণা ল্যাবে যোগদান করেছিলেন। (বর্তমানে এসআরআই আন্তর্জাতিক হিসেবে পরিচিত)। সেখানে তিনি ডগলাস এঙ্গেলবার্টের সাথে দেখা করলেন, একজন সহ প্রকৌশলী যিনি নতুন ধরণের কম্পিউটার তৈরির আশা করেছিলেন। স্ট্যানফোর্ড রিসার্চ ইনস্টিটিউটে কম্পিউটারের জন্য বিশ্বের প্রথম মাউস তৈরি হয়। তখন মাউসটি তৈরি করা হয়েছিল একটি বক্সের মধ্যে। এর সঙ্গে যুক্ত ছিল বিশেষ চাকা, যার মাধ্যমে মাউসটি ব্যবহৃত হতো। আকারেও সেই মাউসটি ছিল বর্তমান মাউসগুলোর তুলনায় বড়। মাউস ছাড়াও ক্যালিফোর্নিয়া রিসার্চ ইনস্টিটিউটে ডগলাস ওয়ার্ড প্রসেসিং, ভিডিও টেলিসম্মেলন নিয়েও কাজ করেছিলেন। ইংলিশ অ্যাঙ্গেলবার্টের ধারণাগুলো ভালোভাবে বুঝতে পেরেছিলেন।

বিবিসি এক প্রতিবেদনে জানা যায় , স্ট্যানফোর্ড রিসার্চ ইনস্টিটিউট ১৯৭১ সালে ছেড়ে জেরক্সের পার্ক গবেষণা কেন্দ্রে যোগ দেন ইংলিশ। সেখানে প্রথমবারের মতো মাউসে চাকার পরিবর্তে বল জুড়ে দেন ইংলিশ। এ নকশাতেই বহু বছর চলেছে মাউস।

জিএ