ঈদ শপিং না করে পাঁচশ’ পরিবারের জন্য স্বদেশের উপহার

প্রকাশ | ২৪ মে ২০২০, ১৭:৪০ | আপডেট: ২৪ মে ২০২০, ১৮:০৭

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
স্বদেশ সমাজ কল্যাণ সংঘের ঈদ উপহার বিতরণ

করোনার প্রভাবে ঈদের খুশি এবার ম্লান। মহামারির আতঙ্কের মধ্য পালিত হবে এবারের ঈদ। আশেপাশের মানুষের আর্থিক অবস্থার কথা বিবেচনা করে নিজেদের ঈদের শপিং বাদ দিয়ে ৫০০ পরিবারের জন্য উপহার সামগ্রী বিতরণ করেছে স্বদেশ সমাজ কল্যাণ সংঘ সংশ্লিষ্টরা।

১৯৮৮ সালে পুরান ঢাকার সুপরিচিত সমাজ সেবক প্রয়াত ওয়াহিদ মুরাদ রুপমের হাত ধরে প্রতিষ্ঠা লাভ করে সংগঠনটি। ৩২ ধরে মানুষের কল্যাণের জন্য কাজ করে যাচ্ছে স্বদেশ।

প্রতিবার মাহে রমজানের শেষদিকে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনটির পক্ষ থেকে সুবিধাবঞ্চিতদের ঈদ উপহার দেয়া হয়। করোনার ছোবলে পাল্টে গেছে দৃশ্যপট দীর্ঘদিন লকডাউনে থাকার কারণে কর্মহীন হয়ে পড়েছে অনেকেই। 

নিম্নবিত্তদের পাশাপাশি বেকায়দায় পড়েছেন নিম্ম মধ্যবিত্ত পরিবারগুলো। কারও কাছে মুখ ফুটে চাইতে পারছেন না তারা। তাই ফেসবুকের মাধ্যমে অনলাইন রেজিস্ট্রেশন করে এই পরিবারগুলোর ঘরে ঘরে উপহার সামগ্রী পৌঁছে দেয়া হয়।

পাশাপাশি সংগঠন প্রাঙ্গনে লালবাগ ছোট ভাটমসজিদ এলাকার দুস্থদের মাঝেও বিতরণ করা হয়েছে ঈদ উপহার।

গেল শুক্রবার বাদ জুমা সংগঠনের সভাপতি হাজী আহমেদ মুরাদ বাপ্পির সভাপতিত্বে এই কার্যক্রম উদ্বোধন করেন লালবাগ থানার পুলিশ পরিদর্শক (ওসি তদন্ত) খন্দকার মো. হেলাল উদ্দিন।

তিনি বলেন,‘করোনাভাইরাসের প্রভাব শুরু হতেই স্বদেশ সমাজ কল্যাণ সংঘ মানুষের পাশে দাঁড়ায়। দফায় দফায় তারা খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দিয়েছে সুবিধাবঞ্চিতদের কাছে। আমি ধন্যবাদ জানাতে চাই সংশ্লিষ্টদের। সত্যিই আপনাদের কার্যক্রম প্রশংসার যোগ্য। পাশাপাশি সমাজের বিত্তবানদেরও এগিয়ে আসার আহ্বান জানাই।’ 

স্বদেশের ঈদ উপহার প্যাকেজে ছিল পোলাওর চাল, একটি মুরগি, সেমাই, চিনি ও নারিকেল। বিতরণ কার্যক্রমে স্বদেশের স্বেচ্ছাসেবকদের পাশাপাশি লালবাগ থানায় কর্মরত পুলিশ প্রশাসনও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে। সম্পূর্ণ সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে উপহার নিতে আসা মানুষগুলো নিজেরেই সামগ্রীগুলো তুলে নেন।

এই আয়োজনে যোগ দিয়েছিলেন স্বদেশের সিনিয়র সহ-সভাপতি আব্দুস সালাম, সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম শ্যামল, সহ সভাপতি ইয়াকুব হোসেন, মোয়াজ্জেম হোসেন বাদশাহ ও খোকন পাটোয়ারী।

আরও উপস্থিত ছিলেন সহ সাধারণ সম্পাদক ফয়সাল আহমেদ খোকন, তানভীর হোসেন কালু। কোষাধ্যক্ষ মোখলেসুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক জাহিদ মুরাদ রাতুল, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মো. ইমরান, ক্রীড়া সম্পাদক মো. আলমগীর, প্রচার সম্পাদক ফরহাদ হোসেন গাজী, সম্মানিত সদস্য মনির হোসেন অন্তর ও কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ইয়াসির আরাফাত কুশল।

স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে পুরো কার্যক্রমের দায়িত্বে ছিলেন আফজাল হোসেন মুনমুন, সুমন আহমেদ, আনান হোসেন, এনএইচ পিয়াস, মোহাম্মদ শিহান ও মো. অপু।

ওয়াই