Mir cement
logo
  • ঢাকা মঙ্গলবার, ১৮ মে ২০২১, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮

দ্বিগুণ সুরক্ষা মিলবে জোড়া মাস্কে: গবেষণা

দ্বিগুণ সুরক্ষা মিলবে জোড়া মাস্কে: গবেষণা

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস সংক্রমণ ছড়িয়ে পরলে গবেষকরা মুখে মাস্ক পড়ার পরামর্শ দেন। এবার মাস্ক পড়ার পরামর্শ আরও জোড়ালো করেছেন গবেষকরা। তারা একত্রে দুটি মাস্ক পড়ার পরামর্শ দিয়েছেন। কারণ দুটি মাস্ক একসঙ্গে পড়লে করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষা দ্বিগুণ হবে।

যুক্তরাষ্ট্রের ইউনিভার্সিটি অব নর্থ ক্যারোলাইনা হেলথ কেয়ারের একদল গবেষক নতুন একটি গবেষণায় এমন প্রমাণ পেয়েছেন। দুটি মাস্ক মুখ ও নাক ভালোভাবে ঢেকে রাখে। ফলে মাঝখানে যেসব স্থান ফাঁকা থাকার শঙ্কা থাকে তা কমে যায়। এতে একটি মাস্ক ভেদ করলেও অপরটি ক্ষুদ্রকণাগুলোর ভেতরে প্রবেশ ঠেকায়।

গবেষকরা মনে করছেন, একত্রে মুখে দুটি মাস্ক পরলে করোনাভাইরাস সংক্রমণের মাত্রা কমে যাবে। কারণ দুটি মাস্ক ভেদ করে করোনা মানুষের নাক কিংবা মুখ দিয়ে ফুসফুসে ঢোকার সক্ষমতা কমে যায়। এতে মানুষ কিছুটা হলেও করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষা পাবেন।

আমেরিকান মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের জেএএমএ ইন্টার্নাল মেডিসিন জার্নালে প্রকাশিত ওই গবেষণা নিবন্ধে বলা হয়েছে, মুখে দুটি মাস্ক একত্রে পরা বলতে বেশি স্তর নয়। মানুষ দুর্বলভাবে মাস্ক পরায় করোনা সহজে সংক্রমণ ছড়াতে পারে। যদি দুটি মাস্ক একত্রে থাকে তাহলে সংক্রমণ ঠেকাতে অধিক সুরক্ষার কাজটি করে।

গবেষণা দলের প্রধান ও নর্থ ক্যারোলাইনা বিশ্ববিদ্যালয়ের স্কুল অব মেডিসিনের সংক্রামক রোগ বিভাগের অধ্যাপক এমিলি সিকবার্ট বেনেটে বলেন, করোনাভাইরাস সুরক্ষা থেকে রেহাই পেতে মেডিকেল মাস্ক সম্পূর্ণ সুরক্ষার নিমিত্তে তৈরি হলেও এটি যেভাবে আমাদের মুখ ঢেকে রাখে তা যথাযথ নয়। তাই জোড়া মাস্ক পরলে করোনা থেকে কিছুটা হলেও সুরক্ষা পাওয়া যাবে।

সিকবার্ট বেনেটে আরও বলেন, জোড়া মাস্ক পরলেও ঢিলেঢালাভাবে পরা যাবে না। জোড়া মাস্ক ঢিলেঢালাভাবে পরার চেয়ে একটি মাস্ক ভালো করে পরলেও বেশি কার্যকর।

গবেষণায় বলা হয়েছে, সাধারণত ব্যক্তিভেদে মাস্কের কার্যকারিতা ৪০ থেকে ৬০ শতাংশ। কিন্তু যখন একটি সার্জিক্যাল মাস্কের ওপর আর একটি কাপড়ের মাস্ক পরা হয়, তখন কার্যকারিতা বিশ শতাংশ বেড়ে যায়। এছাড়া মাস্ক ভালোভাবে পরলে কার্যকারিতা আরও বাড়ে।

এফএ

RTV Drama
RTVPLUS