logo
  • ঢাকা মঙ্গলবার, ২০ আগস্ট ২০১৯, ৫ ভাদ্র ১৪২৬

আড়াই লাখ শিক্ষার্থী একাদশে ভর্তির আবেদন করেনি

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ২৪ মে ২০১৯, ২০:৪১
ফাইল ছবি
প্রায় আড়াই লাখ শিক্ষার্থী এ বছর একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির জন্য আবেদন করেনি। দ্বিতীয় দফায় এসব শিক্ষার্থী ভর্তির জন্য আবেদন করতে পারেন বলে মনে করছেন বোর্ড কর্মকর্তারা। তবে এরমধ্যে কিছু শিক্ষার্থী ঝরে পড়বে বলে তারা মনে করছেন।

bestelectronics
ঢাকা বোর্ডের কলেজ পরিদর্শক অধ্যাপক মো. হারুন-অর-রশিদ জানান, একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির প্রথম ধাপের আবেদন কার্যক্রম শেষ হয়েছে গতকাল বৃহস্পতিবার (২৩ মে) দিনগত রাতে। এই ধাপে মোট ১৪ লাখ ১৫ হাজার ৮২৫ জন শিক্ষার্থী অনলাইন ও এসএমএসের মাধ্যমে ভর্তির জন্য আবেদন করেছে।

এ বছর মাধ্যমিক ও সমমানের পরীক্ষায় মোট ১৭ লাখ ৪৯ হাজার ১৬৫ জন শিক্ষার্থী পাস করেছেন। এরমধ্যে কারিগরি বোর্ড থেকে পাস করেছেন ৯১ হাজার ২৯৮ জন। অর্থাৎ কারিগরি বাদে সব বোর্ড থেকে পাস করেছেন ১৬ লাখ ৫৭ হাজার ৮৬৭ জন। আর কলেজে ভর্তি হতে আবেদন করেছেন ১৪ লাখ ১৫ হাজার ৮২৫ জন। এই হিসেবে এবার মাধ্যমিকে উত্তীর্ণ হয়েও মোট ২ লাখ ৪২ হাজার ৪২ জন শিক্ষার্থী একাদশ শ্রেণিতে ভর্তি হতে আবেদন করেননি। যা উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীর এক-সপ্তাংশ।

এ বিষয়ে কলেজ পরিদর্শক অধ্যাপক হারুন-অর-রশিদ আরও বলেন, যারা আবেদন করেননি তাদের অনেকে পরবর্তী ধাপগুলোতে আবেদন করতে পারে, কেউ কেউ ঝরে পড়বে, কেউ কেউ দেশের বাইরে পড়তে যেতে পারে। এবার কলেজে ভর্তি হতে ১০ লাখ ৫২ হাজার ১৮৪ জন অনলাইন এবং ৩ লাখ ৭৪ হাজার ২২২ জন এসএমএসের মাধ্যমে আবেদন করেছে।

বোর্ড সূত্রে জানা গেছে, ২৪ মে থেকে ২৬ মের মধ্যে শিক্ষার্থীদের আবেদন যাচাই-বাছাই ও আপত্তি নিষ্পত্তি করা হবে। পুনঃনিরীক্ষণে যাদের ফল পরিবর্তন হবে তারা ৩ থেকে ৪ জুন পর্যন্ত আবেদন করতে পারবেন। পছন্দক্রম পরিবর্তন করা যাবে ৫ জুন। ১০ জুন প্রথম পর্যায়ে নির্বাচিত শিক্ষার্থীদের ফল প্রকাশ করা হবে। প্রথম তালিকায় থাকা শিক্ষার্থীদের ১১ থেকে ১৮ জুন সিলেকশন নিশ্চয়ন (যে কলেজের তালিকায় নাম আসবে ওই কলেজেই যে শিক্ষার্থী ভর্তি হবেন তা এসএমএসে নিশ্চিত করা) করতে হবে। এরপর ১৯ থেকে ২০ জুন দ্বিতীয় পর্যায় এবং ২৪ জুন তৃতীয় পর্যায়ে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে আবেদন নিয়ে ২১ জুন দ্বিতীয় পর্যায় এবং ২৫ জুন তৃতীয় পর্যায়ের ফল প্রকাশ করা হবে।

পি

bestelectronics bestelectronics
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়