• ঢাকা সোমবার, ২৭ মে ২০১৯, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬

কিডস মিডিয়ার নতুন লোগো উন্মোচন

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ২০ মার্চ ২০১৯, ১৯:১৯
দক্ষিণ এশিয়ার সেরা শিশু বান্ধব প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বললেন কিডস মিডিয়া প্রধান। জাতীয় শিশু দিবসে দক্ষিণ এশীয় অঞ্চলের প্রথম ও জনপ্রিয় শিশু গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠান ‘কিডস মিডিয়া’ তার নতুন লোগো উন্মোচন করেছে। রোববার (১৭ মার্চ) রাজধানীর কাওরানবাজারে একটি রেস্টুরেন্টে অনড়াম্বর অনুষ্ঠানের মাধ্যমে এ লোগো উন্মোচন করা হয়।

whirpool
অনুষ্ঠানে লোগো উন্মোচন করেন এটিএন নিউজের হেড অব প্রডাকশন কাজী নাজমুল তাপস। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর তথ্য উপদেষ্টা ইকবাল সোবহান চৌধুরী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি থাকলেও রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠানে ব্যস্ততার কারণে যোগদান করতে পারেননি। পুরো ইভেন্ট উপস্থাপনায় ছিলেন এটিএন বাংলা’র জনপ্রিয় ইংরেজি সংবাদ পাঠিকা শায়লা হক ও আনন্দ টিভি’র সংবাদ পাঠক সফি।

প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী আরিফ রহমান শিবলী মঞ্চে উঠেই বিশেষ দিনে স্মরণ করেন বাংলাদেশের জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভূমিকার কথা। তিনি এ সময়ে তার বক্তব্যে বলেন, নতুনভাবে শুরু হতে যাওয়া কিডস মিডিয়া দক্ষিণ এশীয় অঞ্চলের শিশুদের একই প্লাটফর্ম আনতে কাজ করে যাবে। শিশুদের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নিরলস পরিশ্রমের কথা বিশ্বের কাছে তুলে ধরার প্রয়াস চালিয়ে যাবে।

আরিফ বলেন, আগে শুধু বাংলাদেশে মহানগরীগুলোতে কাজ চালালেও কিডস মিডিয়া এবার সকল জেলার শিশু কিশোরের জন্য কাজ করতে তার এক্সপার্ট টিম নিয়ে ছুটে যাবে, শিশু গণমাধ্যমকে শক্তিশালী করার লক্ষ্য নিয়ে। তবে! বাংলাদেশে কিডস মিডিয়ার ব্রাঞ্চ করার ইচ্ছা নেই বলে জানান দক্ষিণ এশীয় অঞ্চলের জনপ্রিয় এই ক্ষুদে গণমাধ্যম এক্সপার্ট।

আরিফ বাংলাদেশ সরকারের প্রশংসা করে বলেন, দক্ষিণ এশীয় অঞ্চলের আমার দেখা সেরা শিশু বান্ধব সরকার হিসেবে অনেক কাজ করে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সব শিশুকিশোরদের এমন প্রধানমন্ত্রী পাওয়ার সৌভাগ্য হয় না বলেও কিডস মিডিয়ার প্রধান তার বক্তব্যতে তুলে ধরেন। সরকার শিশুদের জন্য অনেক কাজ করছে যেটা শিশু কিশোররা জানছে না। কিডস মিডিয়া তার নিজস্ব নেটওয়ার্ক ব্যবহার করে টিভি অনুষ্ঠান, অনলাইন পত্রিকা, দৈনিক পত্রিকা চালু করবে যেখানে সব দায়িত্ব পালন করবে দক্ষিণ এশীয় অঞ্চলের প্রশিক্ষিত শিশু কিশোররা। পাশাপাশি শিশুদের কণ্ঠ সরকারের কাছে পৌঁছে দিতে আগের চেয়েও জোরালো ভূমিকা পালন করবে তার প্রতিষ্ঠান। কিডস মিডিয়া শিশু গণমাধ্যমের ভূমিকার পাশাপাশি খেলাধুলাতেও শিশু কিশোরদের জন্য আয়োজন করবে বেশকিছু ইভেন্ট।

বক্তব্যের শেষ দিকে আরিফ রহমান বলেন, সব কাজ সরকারের একার নয়। নিজ নিজ দায়িত্ব সবাই পালন করলে অবশ্যই ভয়ভীতিমুক্ত দেশ শিশু কিশোরদের দেয়া সম্ভব। শিশু গণমাধ্যমকে এগিয়ে নিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাসহ দক্ষিণ এশীয় অঞ্চলের সরকার প্রধানদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে আরিফ তার দীর্ঘ বক্তব্য শেষ করেন।

এম/ডি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়