Mir cement
logo
  • ঢাকা বুধবার, ২৩ জুন ২০২১, ৯ আষাঢ় ১৪২৮

মালয়েশিয়ায় দুই সপ্তাহের লকডাউনে যা যা নিষিদ্ধ

মালয়েশিয়ায় দুই সপ্তাহের লকডাউনে যা যা নিষিদ্ধ
মালয়েশিয়ায় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ডিজি নূর হিশাম আব্দুল্লাহ’র সঙ্গে মন্ত্রী দাতুক সেরি ইসমাইল সাবরি

করোনা মোকাবেলায় সোমবার থেকে দুই সপ্তাহের লকডাউনে যাচ্ছে মালয়েশিয়া। গেলো বছরের মার্চের আদলে চলবে এই লকডাউন। তবে বিধিনিষেধে আনা হয়েছে বেশ কিছু পরিবর্তন। দেশটির সিনিয়র মন্ত্রী দাতুক সেরি ইসমাইল সাবরি রোববার (৩০ মে) এক সংবাদ সম্মেলনে বিষয়টি জানিয়েছেন।

মন্ত্রী অপ্রয়োজনে কাউকে বাইরে না যাওয়ার অনুরোধ জানিয়েছেন। তবে নিতান্ত প্রয়োজনে কেউ বের হলে নিজ বাসা থেকে ১০ কিলোমিটারের সীমাবদ্ধতা দেয়া হয়েছে এবং এক গাড়িতে সর্বোচ্চ ২ জন চলতে পারবেন। এসময় প্রয়োজনীয় কাগজপত্র অবশ্যই সঙ্গে রাখতে হবে। তবে আন্তঃজেলা ও আন্তঃরাজ্য ভ্রমণের অনুমতি দেয়া হয়নি।

লকডাউনের মধ্যে শারীরিক সংস্পর্শে না এসে খেলাধুলা, বিনোদন ও জগিং চালানো যাবে; তবে তা সকাল ৭টা থেকে রাত ৮টার মধ্যে। করোনায় সম্মুখ যোদ্ধা হিসাবে কাজ করছে এমন বাবা-মায়ের সন্তানদের জন্য কিন্ডারগার্টেন ও নার্সারি খোলা থাকবে। খোলা থাকবে সুপারমার্কেট, রেস্টুরেন্টসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রী বিক্রি করা হয় এমন প্রতিষ্ঠানগুলো।

তবে ১৭টি খাত বাদে সামাজিক ও অর্থনীতির অন্যান্য সকল খাত বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। খোলা থাকবে এমন খাতগুলো হচ্ছে- ফুড ও বেভারেজ, ক্লিনিক ও স্বাস্থ্যসেবা, পানি, বিদ্যুৎ, সিকিউরিটি ও সেফটি, প্রতিরক্ষা, জরুরি সেবা, সমাজকল্যাণ ও মানবিক সহায়তা কেন্দ্র, পয়ঃনিষ্কাশন, গণপরিবহন, জল ও স্থলবন্দরের কার্যক্রম, গণমাধ্যম, টেলিযোগাযোগ, কুরিয়ার সার্ভিস, ব্যাংক, বীমা, ই-কমার্স, তেল সরবরাহ, কোয়ারেন্টিন ও আইসোলেশন হিসাবে ব্যবহৃত হোটেল ও আবাসন, অতি জরুরি কন্সট্রাকশন ও ডেলিভারি সার্ভিস।

এছাড়া সব ধরনের কার্যক্রম দুই সপ্তাহের জন্য সম্পূর্ণ বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ডিজি নূর হিশাম আব্দুল্লাহ’র সঙ্গে এক যৌথ সংবাদ বিবৃতিতে এসব তথ্য দেন মন্ত্রী।

উল্লেখ্য, রোববার দেশটিতে করোনা সংক্রমণ কমে ৬৯৯৯ জন আক্রান্ত হয়েছে। মারা গেছেন ৭৯ জন। শনিবার মালয়েশিয়ায় একদিনে সর্বোচ্চ ৯০২০ জন রোগী শনাক্ত হয় ও মারা যায় ৯৮ জন।

পি

RTV Drama
RTVPLUS