Mir cement
logo
  • ঢাকা মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৩ আশ্বিন ১৪২৮

ফ্যাশন ও লাইফস্টাইল পণ্যের সমাহার নিয়ে ‘মিও আমিকো মার্ট’

মিও আমিকো মার্ট

আধুনিক এই সময়ে সবকিছুই এখন অনলাইনভিত্তিক। নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসসহ জীবনশৈলির সকল জিনিসই এখন অনলাইন থেকে কেনা হয়। সেদিক থেকে অনলাইন মার্কেটিংয়ে বেশ জনপ্রিয় ও মানুষের আস্থার জায়গা করে নিয়েছে ‘মিও আমিকো মার্ট’। ইতোমধ্যে বাংলাদেশের একটি জনপ্রিয় অনলাইন ভিত্তিক পেজ হিসেবে অবস্থান করে নিয়েছে ‘মিও আমিকো মার্ট’।

মিও আমিকো মার্টের সংশ্লিষ্টরা জানান, প্রতিনিয়ত অনলাইন প্ল্যাটফর্মে যেমন ব্যবসার প্রচার ও প্রসার ঘটছে। তেমনি গ্রাহক প্রতারণার ফাঁদও বাড়ছে। তাই অন্যসব অনলাইন প্ল্যাটফর্মের আদলে নয়, মিও আমিকো মার্ট অনলাইন ব্যবসায় গ্রাহকদের আস্থা ও বিশ্বাসের ওপর সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দেয়। এখানে গ্রাহক প্রতারণার সম্ভাবনা শূন্য। মিও আমিকো মার্ট থেকে কোনো ক্রেতা বা গ্রাহক পণ্য কিনে তা পরিবর্তন করতে চাইলে সহজেই পরিবর্তন করতে পারবেন। এছাড়া পণ্য অর্ডারের পর গ্রাহকের কাছে যদি পণ্যটি পছন্দ না হয় তাহলে টাকা ফেরত পাবেন। এমনকি প্রতিষ্ঠানটি অনলাইন প্ল্যাটফর্মে যে ধরনের পণ্য গ্রাহকরা দেখবেন প্যাকেটেও তাই পাবেন। এরপরও কোনো গ্রাহক পণ্য অর্ডার দিয়ে তা বাতিল করতে চাইলে সেই সুযোগ রয়েছে।

মিও আমিকো মার্ট ২০১৮ সালে ফেসবুক পেজের মাধ্যমে অনলাইনভিত্তিক ব্যবসা শুরু করে। গ্রাহকদের আস্থা ও বিশ্বাস অর্জনের মধ্য দিয়ে এ পর্যন্ত ১ লাখ ৩১ হাজারের বেশি ক্রেতা বা গ্রাহকের গুণগত সম্পন্ন পণ্য এবং সেবা দিতে পেরেছে। তারা বাংলাদেশের খ্যাতনামা কোম্পানির অনুমোদিত বিক্রেতা যেমন- Fitfood Wellness Products Ltd., Presto Bangladesh, Mizuho Bangladesh এবং আরও বেশ কিছু কোম্পানির সঙ্গে ব্যবসা সম্প্রসারণে কাজ করছে।

মিও আমিকো মার্টের প্রতিষ্ঠাতা তাসলিমা রওশন বলেন, পেজটি শুরু করার মূল লক্ষ্যই ছিল মানুষের হাতে হাতে উন্নতমানের পণ্য পৌঁছে দেয়া এবং ক্রেতাদের সন্তুষ্টি অর্জন করা। বর্তমানে আমরা মালয়েশিয়া, আমেরিকা, লন্ডনের ব্রান্ডের পণ্য-সামগ্রী আমাদের সম্মানিত ক্রেতাদের কাছে পৌঁছে দিচ্ছি। এই পথ চলায় সর্বদা ক্রেতারা আমাদের অনুপ্রেরণা যোগান তাদের মূল্যবান প্রশংসা এবং পরামর্শের মাধ্যমে। আমরা আন্তরিক কৃতজ্ঞতা স্বীকার করি আমাদের সেই সকল ক্রেতাদের প্রতি।

এসআর/

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS