Mir cement
logo
  • ঢাকা মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৩ আশ্বিন ১৪২৮

করোনায় স্বামী-স্ত্রীর অন্তরঙ্গ হতে দূরত্ব সৃষ্টি হলে যা করবেন 

করোনায় স্বামী-স্ত্রীর যৌন সম্পর্কে দূরত্ব সৃষ্টি হলে যা করবেন 
স্বামী-স্ত্রীর সম্পর্ক

করোনা মহামারির মধ্যে সুস্থ থাকাই সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়িয়েছে। সেই সঙ্গে করোনা সংক্রমণের মধ্যে চাকরি, ব্যবসা, অর্থ, নাম, যশ, ক্ষমতা লাভের ইঁদুর দৌড়ের জেরে বাড়ছে মানসিক চাপ। বাড়িতে বসে অফিসের কাজে চাপ, কাজ হারানোর ভয়, বেতন হ্রাসের চিন্তা, ভবিষ্যতের চিন্তাসহ সব মিলিয়ে সকলে প্রচণ্ড মানসিক চাপে রয়েছেন। আর এই মানসিক চাপের প্রভাব পড়ছে স্বামী-স্ত্রীর যৌন সম্পর্কে। ফলে দম্পতিদের মধ্যে তৈরি হচ্ছে মানসিক এবং শারীরিক দূরত্ব। একসঙ্গে থেকেও দুজন যেন দুজনের কাছে অচেনা মানুষ।

মানসিক প্রশান্তির জন্য অর্থের পাশাপাশি যৌনতার প্রয়োজনও অত্যন্ত অপরিহার্য। যৌন সম্পর্ক নিয়মিত না হলে মানসিক চাপ বাড়তেই থাকে। কজের চাপ বাড়লে বাড়ে মানসিক চাপ। আর তা থেকে বাড়ে শারীরিক চাপ। এই দুই মিলে যৌন জীবনে খারাপ প্রভাব বিস্তার করে।

অতিরিক্ত মানসিক চাপের ফলে শরীরের শক্তি ক্রমশ কমতে থাকে। ফলে সঙ্গী বা সঙ্গিনীর সঙ্গে কথা বলতেই ইচ্ছে করে না, আর যৌনতা তো অনেক দূরের ব্যাপার। এক্ষেত্রে মহিলাদের মানসিক চাপ আরো বেশি। সারা দিন অফিসের কাজ শেষ করে বাসায় ফিরে আবার সংসার কাজ করতে হয়, এতে শারীরিকভাবে ক্লান্তির পাশাপাশি মানসিক ক্লান্তিও চেপে বসে। ফলে যৌনতায় অনীহা দেখা দিতে শুরু করে। আর যৌন জীবনে ঘাটতি মানে সম্পর্কেও প্রভাব পড়া।

মানসিক চাপ কমাতে গিয়ে অনেকেই সিগারেট, অ্যালকোহলের মতো ক্ষতিকর দ্রব্যেরে সঙ্গে জড়িয়ে পড়েন। ফলে যৌন জীবনে এর প্রভাব অত্যন্ত ভয়াবহ আকার ধারণ করে।

স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ক্রমাগত মানসিক চাপ বাড়তে থাকলে দৈনন্দিন ব্যবহারেও নানা পরিবর্তন আসতে থাকে। খিটখিটে মেজাজ, কথায় কথায় রেগে যাওয়া, ঝগড়া করার প্রবণতা সহ একাধিক সমস্যা দেখা দেয়। এর ফলে প্রভাবিত হয় যৌন জীবনও।

যেভাবে মানসিক চাপ কমাবেন

* বিলাসবহুল জীবনের আশায় আপনি যে ইঁদুর দৌড় দৌড়াতে গিয়ে জীবনের গুরুত্বপূর্ণ আনন্দ হারিয়ে ফেলছেন কিনা সেটি ভেবে দেখতে হবে।

* কাজের চাপের মধ্যেও সময় ভাগ করে নিন। অনেক রাত পর্যন্ত কাজ করতে হলে প্রয়োজনে দিনের বেলা স্ত্রীর সঙ্গে মিলিত হন।

* মনে রাখবেন নিয়মিত যৌনতা মানুষকে চাপমুক্ত রাখে। সকালে ঘুম থেকে উঠে যৌনমিলন করলে সারাদিন মন ভালো থাকে। ফলে সারাদিনের কাজে মনোযোগ বৃদ্ধি পায়।

* সঙ্গী ক্লান্ত থাকলে শোবার ঘরটি সুন্দর করে সাজিয়ে গুছিয়ে রোম্যান্সের পরিবেশ তৈরি করুন। সঙ্গীর মন ধীরে ধীরে ভালো হয়ে যাবে।

* মানসিক চাপ কমাতে দিনের একটা নির্দিষ্ট সময় একে অপরের সঙ্গে সারাদিনের কাজ নিয়ে কথা বলুন। একসঙ্গে ভালো খাবার খান। সিনেমা দেখুন।

সূত্র: এই সময়

জেএইচ

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS