Mir cement
logo
  • ঢাকা মঙ্গলবার, ১১ মে ২০২১, ২৮ বৈশাখ ১৪২৮

লাইফস্টাইল ডেস্ক, আরটিভি নিউজ

  ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৮:২৫
আপডেট : ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৮:২৯

সন্তানকে অতিরিক্ত দুধ খাওয়ালেই বিপদ, জেনে নিন সঠিক নিয়ম

সংগৃহীত

শিশুর বয়স ছয় মাস পার হলেই তাকে দুধ ছাড়া অন্য সব খাবার খাওয়ার জন্য পরামর্শ দিয়ে থাকেন চিকিৎসকরা। এক বছর পর থেকে শিশুকে ঘরের তৈরি বিভিন্ন পুষ্টিদায়ক খাবার দিতে বলা হয়। সন্তান স্কুলে যাওয়া শুরু করলে তাকে প্রোটিন, ভিটামিন, ফাইবার জাতীয় খাবার পরিমাণ মতো দেয়া উচিত। তবে ছোট বাচ্চাদের বেশি করে দুধ খাওয়ানো বেশি প্রয়োজন বলে মনে করেন অনেক অভিভাবক।

অভিভাবকদের এসব ধারনা সত্য নয়। ছোট বাচ্চাদের জন্য দুধ অনেক উপকারী, তবে নির্দিষ্ট একটি বয়সের পর তাদের পরিমাণ মতো দিতে হয় দুধ। অন্যথায় বাড়ন্ত শিশুর শরীর যথাযথ পুষ্টি পাবে না। দুধে পর্যাপ্ত পরিমাণে ক্যালসিয়াম রয়েছে যা শিশুর দাঁত ও হাড় গঠনের জন্য জরুরি। এছাড়াও দুধে প্রোটিন, ফ্যাট, ভিটামিন-বি এবং এনার্জি সরবরাহ করে। নিয়মিত দুধ খাওয়ার ফলে সন্তানের বৃদ্ধির বিকাশ হয়। তাই বলে তাকে অতিরিক্ত দুধ খেতে দিবেন না। অতিরিক্ত দুধ খাওয়ার ক্ষতিকর দিকগুলো এবার তাহলে জেনে নেয়া যাক-

সন্তানের পেট যদি দুধেই সর্বক্ষণ ভরা থাকে তাহলে সে অন্যান্য খাবার কম খাবে। হাই ফ্যাট সমৃদ্ধ এই দুধ খাওয়ার ফলে সহজে বাচ্চার খুদা পায় না। এতে অন্য সকল প্রয়োজনীয় খাবার কম করে পায়। ফলে প্রয়োজনীয় অন্যান্য পুষ্টিগুলো অপরিপূর্ণ থাকে।

প্রচুর পরিমাণ ক্যালসিয়াম রয়েছে দুধে। অতিরিক্ত দুধ খাওয়া হলে এই ক্যালসিয়াম অন্য খাবার থেকে শরীরে আয়রন শোষণ করতে বাধা সৃষ্টি করতে পারে। ফলে শিশুর শরীরে ধীরে ধীরে আয়রনের অভাব দেখা দেয়ার সম্ভাবনা থাকে। কিছু কিছু শিশুদের কনস্টিপেশন দেখা দেয়। মূলত বেশি দুধ খাওয়ার ফলে বাচ্চা ফাইবার সমৃদ্ধ খাবার খুব বেশি খেতে পারে না। তাই এ সমস্যা হয়ে থাকে।

তাহলে একজন শিশু কী পরিমাণ দুধ খাবে, বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের মতে শিশুর বয়স এক বছর হওয়ার আগ পর্যন্ত তাকে কখনোই গরুর দুধ খাওয়ানো উচিত নয়। গরুর দুধ পানে শিশুর হজমে সমস্যা হতে পারে। শিশুদের জন্য এক বছর পর্যন্ত মাতৃদুগ্ধ বা ফরমুলা মিল্ক উপযোগী।

শিশুর বয়স যখন এক থেকে তিন বছর বয়স, এই সময়ে ২৪ ঘণ্টায় ৫০০ মিলির বেশি গরুর দুধ খাওয়াবেন না। এই বয়সী বাচ্চাদের দিনে ৫০০ মিলিগ্রাম ক্যালসিয়াম প্রয়োজন এবং চার থেকে আট বছর বয়সী শিশুদের জন্য দিনে ক্যালসিয়াম প্রয়োজন ৭০০ মিলিগ্রাম। প্রতি এক কাপ বা ২৫০ মিলি ফুল ফ্যাট দুধে ক্যালসিয়াম থাকে ২৯৫ মিলিগ্রাম। এবার আপনিই শিশুর বয়স মোতাবেক দেখে নিন তাকে কী পরিমাণ দুধ খাওয়াবেন আপনি।

সূত্র : হেলথ লাইন

এসআর/

RTV Drama
RTVPLUS