logo
  • ঢাকা রোববার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

লাইফস্টাইল ডেস্ক, আরটিভি নিউজ

  ১৫ নভেম্বর ২০২০, ২০:৫৯
আপডেট : ১৫ নভেম্বর ২০২০, ২১:১১

ঘন ঘন গ্যাস হচ্ছে? তিন খাবার বুঝেশুনে খান

symbol image
প্রতীকী ছবি
পেটের মধ্যে হুড়মুড় করা আর একটু পর বায়ু ছাড়া কার বা ভালো লাগে। তবে খাদ্যাভ্যাসের কারণে এই সমস্যায় পড়েন অনেকেই। গ্যাস অম্বলের সমস্যা আর মুঠো মুঠো নিজের মতে ওষুধ খেয়ে তার সমাধান মোটেও ভালো অভ্যাস নয়। প্রতিদিনের জীবনধারায় সামান্য পরিবর্তন এবং খাদ্যতালিকায় কিছু খাবার সংযোজন করলেই নিত্যদিনের এই সমস্যা থেকে স্বস্তি পেতে পারেন। 

কিছু খাবার রয়েছে যা হয়তো অজান্তে সেগুলো দিনের পর দিন খাচ্ছেন। আর গ্যাসের সমস্যায় ভুগতে থাকেন। এর জন্য দায়ী হতে পারে কিছু সবজিও। তাই গ্যাসের সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে এড়িয়ে চলুন কয়েকটি খাবার।

মুলা

শীতকালের এই সবজি দিয়ে নানা তরকারি, স্যালাড বা মুলোর পরোটা-সহ একাধিক পদ পছন্দ করেন অনেকে। কিন্তু মুলা গ্যাসট্রিকের সমস্যা বাড়িয়ে দেয়। যদিও মুলার তরকারি খান, তা হলে খাওয়ার পর একটু মৌরির পানি বা পুদিনা খেতে পারেন।

কাবুলি ছোলা

যারা হজমের সমস্যা বা গ্যাস্ট্রিকে ভুগছেন, তাদের সমস্যা আরও বাড়িয়ে দেয় কাবুলি। যারা কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যায় ভুগছেন, তারা এই ধরনের ছোলা থেকে দূরে থাকুন।

ইঁচড়
পাকা অবস্থায় ফল হিসেবে খাওয়া হলেও, কাঁচা কাঁঠাল সবজি হিসেবে ব্যবহৃত হয়। অনেকে আবার একে নিরামিষভোজীদের নন-ভেজ আইটেম বলেও ডাকেন। বাঙালি ঘরে পাতে ইঁচড়ের ঝোল থাকলে লোভ সামলানো মুশকিল হয়ে যায়। এই সবজি পুষ্টিকর হলেও গ্যাস্ট্রিকের রোগীদের জন্য একেবারেই ভালো নয়।

পাকস্থলীর গ্যাস্ট্রিক গ্লান্ডে অতিরিক্ত অ্যাসিড নিঃসরণের ফলে অ্যাসিডিটি বা গ্যাসের সমস্যা হয়। সাধারণত অনেকক্ষণ খালি পেটে থাকলে, অতিরিক্ত চা, কফি পান করলে, মশলাযুক্ত ও ভাজাভুজি খাবার বেশি খেলে, খাওয়ার অনিয়ম হলে, রাতের খাবার খেয়ে সঙ্গে সঙ্গে ঘুমিয়ে পড়ার অভ্যাস থাকলে, অতিরিক্ত মদ্যপান, ধূমপান, দুশ্চিন্তা, অনিদ্রা ইত্যাদি কারণে পেটে গ্যাস হতে পারে। গ্যাস, অম্বলের কারণেই পেট ফুলে ওঠে, ঢেকুর ওঠে, বুক জ্বালা করে ও পেটের অন্যান্য সমস্যা দেখা দেয়।

জিএ 

RTVPLUS