logo
  • ঢাকা শনিবার, ২৩ জানুয়ারি ২০২১, ৯ মাঘ ১৪২৭

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, আরটিভি নিউজ

  ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ২১:১০
আপডেট : ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ২১:১৫

রাজতন্ত্র বিরোধী সৌদি আলেম কারাগারেই অন্ধ হয়ে গেলেন

anti-monarchy, Saudi, blind, prison
সৌদি আরবের খ্যাতিমান ভিন্ন মতাবলম্বী আলেম শেখ সালমান আল-কুদার
রাষ্ট্রের শাসকগোষ্ঠীর অন্যায়ের বিরুদ্ধে সমালোচনা করলেই সইতে হচ্ছে নির্যাতন। শাসকগোষ্ঠীর সমালোচনা এখন কোনো শাসকই ইতিবাচক হিসেবে দেখছেন না। শাসকরা সবসময় সমালোচকদের নেতিবাচক হিসেবেই দেখছেন। অথচ আন্তর্জাতিক বিশ্লেষকরা মনে করছেন, শাসকগোষ্ঠীর অন্যায়ের সমালোচনা করলে একজন শাসক সহজেই তার সমালোচিত বিষয়গুলো সমাধান করতে পারেন। কিন্তু ইদেনিং শাসকগোষ্ঠীর সমালোচনা করলেই তা নেতিবাচক হিসেবে দেখছেন। তারা সমালোচনাকে কোনোভাবেই ইতিবাচক বা পরামর্শ হিসেবে দেখছেন না। যার প্রকৃত উদাহরণ সৌদি আরবের খ্যাতিমান ভিন্ন মতাবলম্বী আলেম শেখ সালমান আল-কুদার। সৌদি রাজতন্ত্র খ্যাতিমান ভিন্ন মতাবলম্বী আলেমের সমালোচনা মেনে নিতে করেনি। তিনি সৌদি রাজতন্ত্রের ঘোর সমালোচক ছিলেন।

সৌদি আরবের এই খ্যাতিমান ভিন্ন মতাবলম্বী আলেমের ছেলে আবদুল্লাহ আল-আওদা জানান, তার বাবা জেলে যাওয়ার আগে চোখে দেখতে পারতেন এবং কানে শুনতেন। জেলে থাকা অবস্থায় বাবার ওপর অমানবিক নির্যাতন চালানো হয়েছে। সৌদি সরকারের নির্দেশে তার ওপর নির্যাতন চালানোর কারণে অন্ধ ও বধি হয়ে গেছেন। এখন এই প্রখ্যাত আলেম শেখ সালমান আল-কুদার অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। পারসটুডে

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমটিতে প্রকাশ করা হয়েছে যে, সৌদি আরবের বর্তমান যুবরাজ এবং কার্যত শাসক মোহাম্মদ বিন সালমান ক্ষমতাধর হয়ে ওঠার পর দেশটির গণতন্ত্রের জন্য আন্দোলনকারী, আলেম এবং বুদ্ধিজীবীদের ওপর দমনপীড়ন মারাত্মকভাবে বেড়েছে।

প্রিজনার্স অফ কন্সায়েন্স নামে সৌদি আরবের একটি মানবাধিকার সংগঠন তাদের টুইটার পেইজে বৃহস্পতিবার বলেছে যে, কারারুদ্ধ আলেম শেখ সালমান আল-কুদা প্রায় তার শ্রবণ শক্তি হারিয়ে ফেলতে বসেছেন এবং তিনি দৃষ্টিশক্তি হারানোর কাছাকাছি। ৬৩ বছর বয়সি তার ছেলে আবদুল্লাহ আল-আওদা এসব তথ্য জানিয়েছেন। বাবার মুক্তি নিশ্চিত করার জন্য শেখ সালমানের ছেলে আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংগঠনগুলোর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

এফএ

RTV Drama
RTVPLUS