logo
  • ঢাকা মঙ্গলবার, ২১ জানুয়ারি ২০২০, ৮ মাঘ ১৪২৭

বিপুল জয়ে ফের ক্ষমতায় কনজারভেটিভ পার্টি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, আরটিভি অনলাইন
|  ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯, ১২:৪৬ | আপডেট : ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯, ১৭:৪৯
বরিস জনসন
বরিস জনসন (ছবি সংগৃহীত)
ব্রিটেনের সাধারণ নির্বাচনে ক্ষমতাসীন কনজারভেটিভরা আবারও জয়লাভ করেছে। সরকার গঠন করার জন্য ৩২৬টি আসনের প্রয়োজন হলেও বরিস জনসনের নেতৃত্বে কনজারভেটিভ পার্টি এর চেয়ে অনেক বেশি আসন পেয়েছে।

নির্বাচনে সংখ্যাগরিষ্ঠতা পাওয়ার পর বরিস জনসন বলেন, আগামী মাসে ব্রিটেনকে ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে বের করে আনার ম্যান্ডেট দেবে এই জয়।

এর আগে বিবিসি পরিচালিত বুথ ফেরত জরিপে বলা হয়েছিল যে, কনজারভেটিভ পার্টি পার্লামেন্টের ৬৫০টি আসনের মধ্যে ৩৬৪টিতে জয়লাভ করবে। আর লেবার পার্টি পাবে ২০৩টি আসন।

এদিকে ১৯৮৭ সালে মার্গারেট থ্যাচারে নেতৃত্বে নির্বাচনের পর থেকে এটাই কনজারভেটিভ পার্টির সবচেয়ে বড় জয়। পর্যবেক্ষকরা বলছেন, এই জয়ের ফলে বরিস জনসনের জন্য ব্রেক্সিট বাস্তবায়ন করা এখন সময়ের ব্যাপার মাত্র।

---------------------------------------------------------------
আরো পড়ুন: নাগরিকত্ব বিলে ভারতের রাষ্ট্রপতির সই, আইনে পরিণত
---------------------------------------------------------------

কনজারভেটিভ পার্টির জয়ের পর তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় সাবেক প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে বলেন, নির্বাচনে কনজারভেটিভ পার্টির সংখ্যাগরিষ্ঠতায় তিনি খুব খুশি। তিনি বলেন, এই নির্বাচন ব্রিটেনের মানুষের জন্য একটি স্পষ্ট প্রশ্ন ছিল। সেটি হচ্ছে, তারা ব্রেক্সিট চায় কিনা। তারা এটাও বুঝতে পেরেছে যে কনজারভেটিভ পার্টি জয়লাভ করলে ব্রেক্সিট হবে।

অন্যদিকে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর থেকে লেবার পার্টি নির্বাচনে এতোটা খারাপ কখনও করেনি। এরই মধ্যে লেবার পার্টির নেতা জেরেমি করবিন বলেছেন, আগামী নির্বাচনে তিনি দলের নেতৃত্ব দেবেন না। তবে তিনি এখন পদত্যাগ করছেন না; আরও কিছু সময় দলের নেতৃত্বে থাকবেন আলোচনা চালিয়ে যাবার জন্য।

তিনি বলেন, লেবার পার্টির জন্য এটি হতাশার রাত। তিনি সহযোগিতার জন্য ভোটার, পরিবার ও বন্ধুদের ধন্যবাদ জানিয়েছেন। তবে নির্বাচনে তার দল পরাজিত হলেও নিজের আসনে জয়লাভ করেছেন করবিন।

এ/পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • আন্তর্জাতিক এর সর্বশেষ
  • আন্তর্জাতিক এর পাঠক প্রিয়