logo
  • ঢাকা রবিবার, ১৮ আগস্ট ২০১৯, ৩ ভাদ্র ১৪২৬

দুই দ্বীপ থেকে মশা নির্মূল করেছে চীন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
|  ২২ জুলাই ২০১৯, ১২:০৪ | আপডেট : ২২ জুলাই ২০১৯, ১২:১৩
টাইগার মশা
ছবি: সংগৃহীত
চীন সরকার দেশটির দুটি দ্বীপ থেকে মশা প্রায় পুরোপুরিভাবে নির্মূল করে তাক লাকিয়ে দিয়েছে। চীনা বিজ্ঞানীদের এমন সাফল্যের খবর গবেষণা সাময়িকী ‘ইন্টারন্যাশনাল জার্নাল অব সায়েন্স’ এ প্রকাশিত হয়েছে।

bestelectronics
হংকংয়ের একটি গণমাধ্যম জানিয়েছে, দক্ষিণ চীনের গুয়াংদং প্রদেশের দুটি দ্বীপে ‘টাইগার মশা’ নিয়ন্ত্রণে অভিনব জিন প্রযুক্তি ব্যবহার করে প্রায় শতভাগ সাফল্য মিলেছে। এক সময় মশার আখড়া হিসেবে পরিচিত ছিল ওই দুটি দ্বীপ।

চীনা গবেষকরা বলছেন, মশার কামড় ৯৪ শতাংশ এবং মশাবাহিত রোগের প্রকোপ ৯৭ শতাংশ কমানো গেছে। যুক্তরাষ্ট্রের মিশিগান স্টেট বিশ্ববিদ্যালয়ের চীনা গবেষক শি ঝিয়ং আবিষ্কৃত পদ্ধতি অনুসরণ করেই এসেছে এই সাফল্য।

খবরে বলা হয়েছে, জিন প্রযুক্তির সহায়তায় টাইগার মশাদের বংশবৃদ্ধি নিয়ন্ত্রণ করা গেছে। ২০১২ সালে দক্ষিণ চীনের পরীক্ষাগারে ঝিয়ং কাজ শুরু করেছিলেন। ২০১৬ সালে চীন সরকার তাকে মশা নির্মূলকরণ অভিযানের দায়িত্ব দেয়।

ঝিয়ং প্রথমে জিন প্রযুক্তির সাহায্যে নির্বীজ পুরুষ মশা তৈরি করেন। তারপর ওই দ্বীপ দুটিতে বহুসংখ্যায় মশা ছাড়া হয়। স্ত্রী মশাদের সঙ্গে মিলনে সক্ষম হলেও নির্বীজ পুরুষ মশারা বংশবিস্তার করতে পারে না। ফলে ধীরে ধীরে সেখানে মশার সংখ্যা কমতে শুরু করে।

পরবর্তী পর্যায়ে ঝিয়ং তার তিন হাজার ৫০০ বর্গমিটারের ‘মশা কারখানায়’ বিশেষ ‘ওলখবিয়া’ ব্যাকটিরিয়া সংক্রমিত পুরুষ মশা তৈরি করেন। আর তারা ‘কাজ’ শুরু করতেই মেলে চমকপ্রদ ফল। এর ফলে গুয়াংদংয়ের ওই দ্বীপ দুটি থেকে মশারা কার্যত নির্মূল হয়ে যায়।

bestelectronics bestelectronics
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়