যুক্তরাষ্ট্রে ঘুম ভেঙেই ১১ ফুট লম্বা কুমিরের মুখোমুখি এক বৃদ্ধা

প্রকাশ | ০২ জুন ২০১৯, ২২:৪৮ | আপডেট: ০২ জুন ২০১৯, ২২:৫৪

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, আরটিভি অনলাইন

কোনও মানুষই হঠাৎ করে তার বাসায় কুমির দেখে অবাক হতে চায় না। কিন্তু ঘুম ভেঙেই এমন এক পরিস্থিতির শিকার হয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডার ক্লিয়ারওয়াটার শহরের এক ৭৭ বছর বয়সী নারী।

শুক্রবার ভোর সাড়ে তিনটার দিকে একটি উচ্চশব্দে হঠাৎ ঘুম ভেঙে যায় ম্যারি উইসছুসেন নামের এই বৃদ্ধার। এরপর তিনি রান্নাঘরে ঢুকে অ্যালিগেটর প্রজাতির ১১ ফুট লম্বা একটি কুমিরের মুখোমুখি হন।

যুক্তরাষ্ট্রের গণমাধ্যম সিএনএনের শাখা স্পেকট্রাম নিউজের খবরে এসব কথা বলা হয়। উইসছুসেন স্পেকট্রামকে বলেন, নিজের থাকার জায়গা দখলকারী সরীসৃপটি আমার দিকে এক দৃষ্টিতে তাকিয়েছিল।

এরপর তিনি তার শোবার ঘরে গিয়ে দরজা বন্ধ করে ৯১১-তে কল করেন। ক্লিয়ারওয়টার পুলিশ ডিপার্টমেন্টের মতে, এই পুরুষ প্রজাতির কুমির রান্নাঘরের নিচের জানালাগুলো ভেঙে সেখানে ঢোকে।

স্পেকট্রাম নিউজের খবরে বলা হয়, বাসাটির জানালা ভাঙার আগে কুমিরটি যখন ড্রেনের ভেতরে ঢোকার চেষ্টা করে, তখন বিষয়টি বুঝতে পেরেছিলেন এই এলাকায় সংবাদপত্র বিতরণকারী প্যাট্রিসিয়া পেকোরা।

এই নারীর বরাত দিয়ে সিএনএনের শাখাটিতে প্রকাশিত খবরে বলা হয়, তখনকার শব্দ শুনে তার মনে হয় কিছু একটা পড়ে বা ভেঙে গেছে। তাই তিনি ৯১১-তে কল দিয়ে বলেছিলেন, শব্দটি স্বাভাবিক নয়।

পুলিশের মতে, একজন শিকারিকে ডাকা হয় এবং কোনও ধরনের হতাহত ছাড়াই বাসাটি থেকে প্রাণিটিকে নিরাপদে সরানো হয়। তবে সরীসৃপটির আঘাতে বেশ কয়েকটি মদের বোতল ভেঙেছে।

উইসছুসেন বলেন, আমি কৃতজ্ঞ কারণ প্রাণিটি আমার শোবার ঘরে আসেনি এবং দরজা ভাঙেনি। এই ঘটনা যেসব মানুষ আমাকে সহযোগিতা করেছেন, তাদের প্রতিও আমি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করছি।

পুলিশ জানায়, এই অ্যালিগেটর প্রজাতির কুমিরের বিশ্রাম ও সুস্থতার জন্য প্রথমে একটি লোকাল স্পটে নেয়া হবে। এখান থেকে এটিকে ফ্লোরিডার ফোর্ড মিডে’র একটি প্রাইভেট অ্যালিগেটর ফার্মে নেয়া হবে।

কে/ এমকে