Mir cement
logo
  • ঢাকা শনিবার, ১৫ মে ২০২১, ১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮

করোনার অস্তিত্ব নেই দাবি করে মাস্ক পরতে আপত্তি, অতঃপর ঠাঁই হলো জেলে

Delhi couple, stopped for not wearing mask inside car, misbehaves with cops
সংগৃহীত

কোভিড গাইডলাইন এবং উইকএন্ড কারফিউয়ের নিয়ম অমান্য করার অপরাধে এক দম্পতির বিরুদ্ধে এজাহার দায়ের করেছে দিল্লি পুলিশ। ওই দম্পতির বিরুদ্ধে পুলিশকে হেনস্থা করার অভিযোগও উঠেছে। রোববার দিল্লির দরিয়াগঞ্জ এলাকায় ওই ঘটনার ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে।

ভিডিওতে দেখা যায়, পুলিশ তাদের আটকানোর পর প্রবল চিৎকার জুড়ে দেন গাড়িতে বসে থাকা এক নারী। ওই নারীর বিরুদ্ধে অভিযোগ যে, তাকে গাড়ি সাইড করতে বলা হলে করোনার অস্তিত্ব নেই বলে দাবি করেন তিনি। এমনকি স্বামীকে পুলিশের সামনে চুমু খাবেন বলেও জানান তিনি।

এরপর সেখানে কর্মরত অফিসারদের উদ্দেশ্য করে অশ্রাব্য ভাষায় গালিগালাজ শুরু করেন ওই নারী। এক পুলিশ কর্মকর্তা বিষয়টি রেকর্ড করছেন দেখে তিনি বলেন, এই ভিডিও আপলোড করে দেখান আপনাদের ক্ষমতা কতদূর! আমিও দেখে নেবো।

জানা গেছে, অভিযুক্তদের নাম পঙ্কজ দত্ত এবং আভা। করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ হয়ে ওঠায় সপ্তাহান্তে কারফিউ জারি হয়েছিল রাজধানীতে। তখন শুধু আপৎকালীন কর্মী এবং ই-পাস রয়েছে যাদের, তারাই বাড়ি থেকে বের হতে পারবেন, এমনটাই জানানো হয়েছিল।

পুলিশের দাবি, এই দম্পতির কাছে ই-পাস তো ছিলই না, এমনকি তারা ফেস্ক মাস্কও পরেননি। যখন তাদের এ নিয়ে প্রশ্ন করা হয় তখনই চেচামিচি শুরু করে দেন আভা। তিনি বলেন, করোনাভাইরাস বলে কোনও কিছুর অস্তিত্বই নেই। আপনারা আমাদের হেনস্থা করার চেষ্টা করছেন।

এক পুলিশ কর্মকর্তা এর প্রতিবাদ করতে গেলে আভা বলেন, বেশি বাড়াবাড়ি করলে আমি আমার স্বামীকে এখনই চুমো খাবো। দেখি আপনারা কী করতে পারেন! পরে থানা থেকে নারী পুলিশ কর্মীদের ঘটনাস্থলে আসতে বলা হয়। তারাই এই দম্পতিকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

RTV Drama
RTVPLUS