logo
  • ঢাকা শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ৪ বৈশাখ ১৪২৮

যুক্তরাজ্যে ফিরতে শামীমাকে অনুমতি দেয়নি সুপ্রিমকোর্ট

The Supreme Court did not allow Shamima to return to the UK
বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ তরুণী শামিমা বেগম

যুক্তরাজ্যের সুপ্রিমকোর্ট আইএসে যোগ দেয়া বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ তরুণী শামিমা বেগমকে সিরিয়া থেকে নিজ দেশে ফেরার অনুমতি দেয়নি। শুক্রবার এ রায় ঘোষণা করা হয়। বার্তা সংস্থা এএফপি ও বিবিসির।

শামীমার দাবি, ব্রিটিশ সরকারের এই সিদ্ধান্ত বেআইনি। এতে তিনি রাষ্ট্রহীন হয়ে পড়েছেন এবং তার মৃত্যুর ঝুঁকি রয়েছে।

আরও পড়ুন : গ্রামে পুরুষ নেই, তবুও গর্ভবতী হয় নারীরা!

এর আগে নাগরিকত্ব বাতিল হওয়ার সিদ্ধান্ত আইনগতভাবে মোকাবেলা করতে ব্রিটেনে ফিরে যাওয়ার অনুমতি চেয়েছিলেন শামীমা। সিরিয়ায় আইএসে যোগ দেওয়ার বছর দুয়েক আগে জাতীয় নিরাপত্তার কথা বিবেচনায় নিয়ে তার নাগরিকত্ব বাতিল করা হয়েছিল। তখন ব্রিটেনের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর দায়িত্বে ছিলেন সাজিদ জাভিদ। স্কুলের দুই বন্ধুকে সঙ্গে নিয়ে শামিমা যখন সিরিয়ায় পাড়ি জমান তখন তার বয়স ছিল ১৫ বছর। পরে এক আইএস যোদ্ধাকে বিয়ে করেন তিনি।

সিরিয়ার ক্যাম্পে বর্তমানে এই ২১ বছর বয়সী তরুণী দুর্গত অবস্থায় রয়েছেন। তার স্বামী সিরীয় কারাগারে আছেন। তাদের তিনটি সন্তানই মারা গেছে।

আরও পড়ুন : পালাক্রমে ধর্ষণের শিকার অপহৃত মেয়েকে ফেরত দিতে মাকেও শারীরিক সম্পর্কের প্রস্তাব

এদিকে ওই রায়ের ফলে শামীমা দেশে ফিরে তার নাগরিকত্ব বাতিলের সিদ্ধান্ত আইনগতভাবে মোকাবেলা করতে পারবেন না। ক্যাম্প থেকে সে তার মামলায় লড়তে পারে না। এই সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা করতে তখন সুপ্রিম কোর্টকে অনুরোধ জানায় ব্রিটিশ সরকার। কাজেই শুক্রবার তার ভাগ্য নির্ধারণ হয়।

পি

RTV Drama
RTVPLUS