নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি পালন করতে যাচ্ছেন ট্রাম্প!  

প্রকাশ | ১০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৫:১২ | আপডেট: ১০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৫:৫০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, আরটিভি নিউজ
ডনাল্ড ট্রাম্প ।। ছবি: সংগৃহীত

ইরাক থেকে দুই হাজার সেনা কমাবে আমেরিকা। জার্মানি জানিয়েছে, তারাও ইরাক থেকে সেনা কমাবে।

চলতি মাসেই ইরাক থেকে সেনা কমাবে আমেরিকা। প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প তার নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি পালন করতে চান। তিনি আমেরিকাকে অপ্রয়োজনীয় যুদ্ধের হাত থেকে রেহাই দেয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন।

ট্রাম্পের এই সিদ্ধান্ত এসেছে একটি মার্কিন পত্রিকায় প্রকাশিত খবরের পর। সেখানে হোয়াইট হাউসের সূত্র জানিয়েছে, ট্রাম্প মৃত আমেরিকান সেনাদের 'লুসার্স' বলেছেন। তবে ট্রাম্প এই কথা অস্বীকার করেছেন।

আমেরিকার সেন্ট্রাল কম্যান্ডের কম্যান্ডার ফ্র্যাঙ্ক ম্যাকেনজি জানিয়েছেন, এখন ইরাকে পাঁচ হাজার ২০০ জন সেনা আছেন। এই সংখ্যা তিন হাজারে নামিয়ে আনা হবে। তার দাবি, ''আমেরিকা তাদের চূড়ান্ত লক্ষ্যে পৌঁছতে চায়। সেটা হলো, ইরাকি সেনা বাহিনীকে তৈরি করে দেয়া, যাতে তারা আইএসের মোকাবিলা করতে পারে এবং বাইরের কারো সাহায্য ছাড়াই ইরাকে শান্তি ও সার্বভৌমত্ব বজায় রাখতে পারে।''

প্রশাসনের এক কর্তা জানিয়েছেন, আফগানিস্তান থেকেও মার্কিন সেনা সরানোর কাজ আগামী দিনে শুরু হয়ে যাবে। ২০০১ থেকে মার্কিন সেনা আফগানিস্তানে আছে। ইরাকে আছে ২০০৩ থেকে। ২০১১-তে তারা ফিরে আসেন। আবার ২০১৪-তে ইরাকে মার্কিন সেনা পাঠানো হয়। কারণ, তখন আইএস ইরাকের অধিকাংশ জায়গায় আধিপত্য কায়েম করে ফেলেছিল। 

এদিকে শুধু আমেরিকাই নয়, ইরাক থেকে সেনা কমাবে জার্মানিও। জার্মান সরকার বুধবার জানিয়েছে, ইরাক থেকে সেনা কমিয়ে ফেলা হবে। সেখানে মাত্র ৫০০ সেনা রাখা হবে। জার্মান প্রতিরক্ষামন্ত্রী জানিয়েছেন, করোনার সময়েও আইএস জঙ্গি কার্যকলাপ চালিয়ে গেছে। তাই আইএসের ওপর সামরিক চাপ সৃষ্টি করতে হবে। 

সে জন্য ৫০০ সেনা রাখতে চায় জার্মানি। আইএসের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক জোটের অঙ্গ হিসাবে ইরাকে সেনা পাঠায় জার্মানি। তারা ইরাকি নিরাপত্তা বাহিনীকে প্রশিক্ষণ দিয়েছে। তাদের হাতে কিছু প্রয়োজনীয় যুদ্ধাস্ত্রও দিয়েছে। সূত্র ডয়চে ভেলে।

আরও পড়ুন:  মাস্ক ছাড়াই প্রচারণা চালাচ্ছেন ট্রাম্প

এনএম/এসএস