• ঢাকা সোমবার, ১৭ জুন ২০১৯, ৩ আষাঢ় ১৪২৬

মুক্তির আগেই প্রশংসায় ভাসছে ‘আবার বসন্ত’

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ২৯ মে ২০১৯, ১৬:৩৩

পর্দায় ইমরান চৌধুরী ও তার প্রেমিকা তিথি মোস্তফার রসায়ন চলছে, দর্শক সারিতে চলছে করতালি ও শিস। ৬৫ বছর বয়সী ইমরান চৌধুরীর সঙ্গে ২৫ বছর বয়সী তিথির প্রেম দেখে মুগ্ধ হয়েছেন অনেকেই। প্রেম যে বয়স মানে না তার সত্যিকার প্রমাণ পাওয়া গেল সিনেমাটিতে।

আসছে ঈদ উল ফিতরে প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেতে যাচ্ছে অনন্য মামুন পরিচালিত ‘আবার বসন্ত’ ছবিটি। এতে প্রধান দুই চরিত্রে অভিনয় করেছেন খ্যাতিমান অভিনেতা তারিক আনাম খান ও অর্চিতা স্পর্শিয়া। ছবিতে তারিক আনাম খানের নাম ইমরান চৌধুরী আর স্পর্শিয়া তিথি মোস্তফা চরিত্রে অভিনয় করেছেন।

সিনেমাটির মুক্তি উপলক্ষে গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টা ৪৫ মিনিটে রাজধানীর বলাকা সিনেমা হলে হয়ে গেল প্রিমিয়ার। সেখানেই প্রেম রসায়নের বিভিন্ন সূত্র দেখে মুগ্ধ হয়েছেন উপস্থিত দর্শক।

সিনেমাটি দেখতে এসেছিলেন টেলিভিশন ও চলচ্চিত্র অঙ্গনের তারকারা। বিরতিহীনভাবেই শেষ হয় ছবিটি। এসময় উপস্থিত ছিলেন তারিক আনাম খান, অর্চিতা স্পর্শিয়াসহ, চিত্রনায়ক ড্যানি সিডাক, সাইমন সাদিক, নিরব, আইরিন, বিপাশা কবির, জলি, চলচ্চিত্র নির্মাতা রায়হান রাফি, সাঞ্জু জন, আঁচল, আঁখি, কচি খন্দকারসহ অনেকে। 

সিনেমাটি প্রিমিয়ার শুরুর আগে সন্ধ্যা ৭টায় ছিল সংবাদ সম্মেলন। এসময় ছবিটি নিয়ে অভিনেতা তারিক আনাম খান বলেন, ‘ ঈদ মানে শাকিব খানের ছবি। এই মৌসুমে আবার বসন্ত মুক্তি দেয়া একটি সাহসের কাজ। এই সিনেমায় এমন কিছু মানুষের গল্পকে তুলে ধরা হয়েছে যাদের আমরা মনে করি সমাজ থেকে তারা বাতিল হয়ে যাচ্ছেন। যে মানুষদের আমরা সমাজের বোঝা মনে করি। মনে করি, তাদের জীবনে বসন্ত বলে কিছু নেই। তাদেরই গল্প এটি। ভিন্ন ধারার এই সিনেমাটি সবাই উপভোগ করবেন। সকলের সহযোগিতা ও শুভকামনা থাকলে সিনেমাটি অবশ্যই সফল হবে।’

স্পর্শিয়া বলেন, ‘ভালো একটি কাজ করেছি। আমি আরও সিনেমা করতে চাই। ছবিটি দেখার পর আপনারা আমার ভুলগুলো ধরিয়ে দেবেন। আমি আরও ভালো করতে চাই। নায়িকা  কি-না আমি জানিনা, সবসময় চেয়েছি আমি যেন ভালো অভিনেত্রী হতে পারি। অনন্য মামুনকে ধন্যবাদ আমাকে সুযোগ দেবার জন্য।

ছবিটির বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন মনিরা মিঠু, করভি মিজান, ইমতু রাতিশ, মুকিত, আনন্দ খালিদসহ অনেকে। ছবিটি প্রযোজনা করেছে ট্যাম মাল্টিমিডিয়া।

 

জিএ/এম 

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়