Mir cement
logo
  • ঢাকা রোববার, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ৯ কার্তিক ১৪২৮

ঝড়-ঝাপটা পেরিয়ে আসছে 'সাহস'

ঝড়-ঝাপটা পেরিয়ে আসছে 'সাহস'

চলচ্চিত্র জীবনের কথা বলে। সবার দেখা আর চলচ্চিত্র নির্মাতার দেখা এক হলে চলে না। যে বিষয়টি দর্শকের সুপ্ত কল্পনায়ও খেলা করেনি, একজন নির্মাতাকে সেটি দিয়েই দর্শকের সঙ্গে সংযোগ স্থাপন করতে হয়। নবীন নির্মাতাদের ক্ষেত্রে এই পথচলাটা খুব একটা সহজ নয়। সব ঝড়-ঝাপটা অতিক্রম করেই জীবনের প্রথম সিনেমা নিয়ে হাজির হচ্ছেন তরুণ নির্মাতা সাজ্জাদ খান। সামান্য সংশোধন সাপেক্ষে সেন্সর ছাড়পত্র পেয়েছে 'সাহস'।

অশ্লীল ও অসংলগ্ন সংলাপ থাকায় প্রথম দফায় ‘সাহস’ সিনেমাটিকে ছাড়পত্র দেয়নি বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ড। সিনেমাটির প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান আপিল করলে সেন্সর বোর্ড কারণ দেখিয়ে প্রদর্শন অযোগ্য ঘোষণা করে। কাটছাঁট করে নতুন করে সিনেমাটি সেন্সরে জমা দেয়ার পর সেটি প্রদর্শনের অনুমতি পেয়েছে।

‘অনেক ঝড়-ঝাপটা অতিক্রম করেই আসছে সাহস। ধন্যবাদ সবাইকে, যারা পাশে ছিলেন।’ এভাবেই স্বল্প বাক্যে আরটিভি নিউজের কাছে নিজের প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করলেন নির্মাতা সাজ্জাদ খান। দেরিতে হলেও সেন্সর পেয়ে বেজায় খুশি এই নির্মাতা। উচ্ছ্বসিত সবার প্রশংসা পেয়ে। অভিনেতা, অভিনেত্রী, কলাকুশলী থেকে শুরু করে ধন্যবাদ জানালেন সংশ্লিষ্ট সবাইকে। এমনকি ধন্যবাদ জানাতে ভুললেন না শুটিংয়ের সময় সহযোগিতা করা বাগেরহাটের চা বিক্রেতাকেও।

সিনেমাটি মুক্তির বিষয়ে তিনি আরটিভি নিউজকে জানান, ‘ছাড়পত্র পাওয়াটা আমাদের জন্য খুবই খুশির সংবাদ। এখন সিনেমাটি কীভাবে মুক্তি দেওয়া যায়, সেটি নিয়ে ভাবছি। আমাদের পরিকল্পনা রয়েছে, আগামী নভেম্বরে মুক্তি দেব।’

সিনেমটিতে মফঃস্বলের একজন নারীর ঘুরে দাঁড়ানোর গল্প দেখানো হয়েছে। যে নারী সব বাধা পেছনে ফেলে এগিয়ে যায়। মূলত সবার জন্যই গল্পটা বলা। তবে দর্শকের কাছে গল্পটি তুলে ধরার জার্নিটা সহজ ছিলো না। প্রচুর ফাইট করতে হয়েছে বলে জানিয়েছেন নির্মাতা সাজ্জাদ খান।

নির্মাতা সূত্রে জানা যায়, গেলো বছরের নভেম্বর ও ডিসেম্বর মাসে বাগেরহাটে ‘সাহস’-এর দৃশ্যধারণ করা হয়েছে। এতে প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন মোস্তাফিজুর নূর ইমরান ও লাক্স তারকা নাজিয়া হক অর্ষা। এছাড়াও আরও অভিনয় করেছেন থিয়েটার রেপার্টোরি বাগেরহাটের একঝাঁক অভিনয়শিল্পী।

আরআর/এনএস

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS