Mir cement
logo
  • ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২২ এপ্রিল ২০২১, ৯ বৈশাখ ১৪২৮

ইকবাল আমার মামা, তার সব সিনেমায় থাকি: মিশা সওদাগর

ইকবাল আমার মামা, তার সব সিনেমায় থাকি: মিশা সওদাগর
ছবিতে মিশা সওদাগর ও ইকবাল

দীর্ঘ ৬ মাস পর আমেরিকা থেকে দেশে ফিরেছেন খ্যাতিমান অভিনেতা ও বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সভাপতি মিশা সওদাগর। তার এবারের যাত্রায় সঙ্গী হয়েছে পুরো পরিবার। করোনা পরিস্থিতিতে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় অনলাইনে শিক্ষা কার্যক্রম চলছে। আর তাই মিশার সঙ্গে পরিবারের অন্য সদস্যরাও দেশে ফিরেছেন। যাত্রার ক্লান্তি দূর না হতেই ‘রিভেঞ্জ’ শিরোনামের নতুন সিনেমায় চুক্তিবদ্ধ হলেন তিনি।

আরও পড়ুনঃ খারাপ জিনিস দেখার দরকার নাই, রুচি নষ্ট করে: তৌকীর আহমেদ

প্রযোজক হিসেবে খ্যাতি পাওয়া ইকবাল হোসেন ‘রিভেঞ্জ’ সিনেমার মাধ্যমে পরিচালক হিসেবে যাত্রা শুরু করছেন। তার এই যাত্রায় সঙ্গী হয়েছেন মিশা সওদাগর। এ সিনেমায় নায়ক হিসেবে হাজির হবেন জিয়াউল রোশান। তবে নায়িকা এখনো চূড়ান্ত করা হয়নি।

নতুন ছবিতে চুক্তিবদ্ধ হওয়া প্রসঙ্গে মিশা সওদাগর বলেন, ‘পরিবারের জন্য টানা ৬ মাস আমেরিকায় ছিলাম। আমেরিকায় থাকাকালীন বেশ কিছু সিনেমায় কাজের অফার পেয়েছি। ব্যাটে-বলে মেলেনি বলে করা হয়নি। সব সিনেমায় আমাকে থাকতে হবে এটা জরুরী না। আগামী মে মাসে দেশে ফেরার কথা ছিলো। কিন্তু ‘রিভেঞ্জ’ সিনেমার শুটিং এর জন্য চলতি মাসেই দেশে ফিরতে হলো। উনি আমার সম্পর্কে মামা হন, ইকবাল মামা। প্রথম সিনেমা থেকে শুরু করে এখন পর্যন্ত আমাকে ছাড়া তিনি কোন সিনেমা করেননি।’

সিনেমার নাম প্রসঙ্গে তার ভাষ্য, ‘দর্শক আমাদের অনেক দিয়েছে, আমরা দর্শকদের অনেকদিন ভালো কিছু দিতে পারছি না। এজন্য এই সিনেমার মাধ্যমে রিভেঞ্জ হিসেবে দর্শকদের ভালো কিছু উপহার দিবো। এই সিনেমাটি কোন পুরস্কারের জন্য নির্মিত হবে না। শুধুমাত্র দর্শকদের বিনোদন দিতেই সিনেমাটি নির্মাণ করা হবে।’

অন্যদিকে নব্য পরিচালক ইকবাল বলেন, ‘মিশা মামার মতো অভিনেতা আর একটিও নেই। তার মতো আর কখনো কেউ আসবে বলেও মনে হয় না। তিনি কাজের ক্ষেত্রে প্রচুর আন্তরিক। তার মত এত বড় মাপের অভিনেতা যে এতটা আন্তরিকতার সাথে কাজ করতে পারে সেটা সত্যিই গর্বের। আমরা খুব মজা করে শুটিং করি। এর আগের সিনেমাগুলোর শুটিংয়ে আমাদের বেশ মজার স্মৃতি আছে। আশা করছি এবারের সিনেমাটিও বেশ ভালো হবে।’

আরও পড়ুন : তৃতীয় বিয়ে ভাঙতে না ভাঙতেই অভিনেতার প্রেমে হাবুডুবু খাচ্ছেন শ্রাবন্তী!

সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে ‘বয়কট’ প্রসঙ্গে জিজ্ঞাসা করা হলে মিশা সওদাগর বলেন, ‘বয়কট কখনো সম্মানজনক বিষয় না। আমি শতভাগ একজন শিল্পী। আমার মতো একজন শিল্পী কাজ করুক সেটা সকলেই চায়। প্রত্যেকটি সংগঠনের প্রতি আমার সম্মান ও শ্রদ্ধা রয়েছে। আমরা সবাই মিলে একসাথে কাজ করবো। যদি কখনো কারো ভুল হয় তখন আমাদের মুরুব্বীদের মাধ্যমে সেটা সমাধান করবো। আমাদের প্রত্যেকের সহনশীল হওয়া উচিত, সংযত হওয়া উচিত। নিজেদের মধ্যে কিছু হলেই আইনের আশ্রয় নেয়াটা মোটেই ভালো কিছু না, লোক হাসে। লোক চলচ্চিত্রকে এমনিতেই অনেক দূরে সরিয়ে দিয়েছে। চলচ্চিত্রের কেউ যাতে কখনো বলতে না পারে আপনি এখানে আসতে পারবেন না। রিভেঞ্জের মাধ্যমে সকল রিভেঞ্জ শেষ হবে বলে আশা করছি।’

চলচ্চিত্রে প্রতিষ্ঠা পেতে একজন ভিলনকে কতটা প্রচেষ্টার মধ্য দিয়ে যেতে হয় সেটি অনুধাবন করে তিনি বলেন, ‘একটা ছবি হিট হলেই একজন নায়ক হয়ে যায়। একটা ভিলেনকে তার জায়গা নিতে হলে কমপক্ষে ২০টি সিনেমা হিট দিতে হবে। ভিলেন হতে হয় মাটিশক্ত করে। ভিলেন হচ্ছে সিনেমার গল্পের ইউটার্ন। আমি চাই, নতুন ছেলেরা কাজে আসুক।’

আয়োজনের শেষদিকে সাংবাদিকদের উপস্থিতিতে ‘রিভেঞ্জ’ সিনেমার চুক্তিপত্রে স্বাক্ষর করেন মিশা সওদাগর। আগামী এপ্রিলের ২০ তারিখ থেকে টানা দৃশ্যধারণ শুরু হবে।

এনএস

RTV Drama
RTVPLUS