logo
  • ঢাকা রোববার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

বিনোদন ডেস্ক

  ১৬ নভেম্বর ২০২০, ১১:৪৪
আপডেট : ১৬ নভেম্বর ২০২০, ১৮:১৬

অমৃতাকে জোর করে চুমু খান অমিতাভ

অমিতাভ-অমৃতা।
ঘুরে ফিরে বলিউড নায়িকা রেখার সঙ্গেই অমিতাভ বচ্চনের প্রেমের গুঞ্জন চাউর হয়েছে। রেখা ছাড়া আরও একজন নারীকে মন দিয়েছিলেন অমিতাভ।

এক সময় অমৃতা সিংয়ের প্রতিও তীব্র আকর্ষণ জন্মেছিল তার মনে। অমৃতাকে তিনি নাকি এতোটাই পছন্দ করতে যে শুটিংয়ের বাইরে তাকে অন্য নায়কের সঙ্গে দেখতে একেবারেই পছন্দ করতেন না।

এক পার্টিতে অমৃতাকে জোর করে চুমু খান অমিতাভ। পরে যদিও এমন আচরণের জন্য অমৃতার কাছে ক্ষমাও চেয়ে নিয়েছিলেন তিনি।

এই খবর একটি ম্যাগাজিনে প্রকাশিত হয়েছিল ১৯৯১ সালে। অমিতাভ এবং অমৃতা দু’জনেই তখন সুপারস্টার।

অমৃতার সঙ্গে কখনও রবি শাস্ত্রী এবং কখনও বিনোদ খান্নার নাম জড়িয়ে গসিপ হয়েছে।

এক পার্টিতে অমিতাভ তার সে সময়ের বন্ধু ড্যানির সঙ্গে গল্প করছিলেন। কিন্তু তার চোখ ছিল কিছু দূরে থাকা অমৃতার উপর। পার্টি থেকে বেরিয়ে যাওয়ার সময় নাকি অমৃতা তাদের কাছে যান। অমিতাভ তাকে আরও কিছুক্ষণ থেকে যেতে অনুরোধ করেন। এক সময় ড্যানি এবং অমৃতা দু’জনে মঞ্চে নাচতে চলে যান। এ সবই দাঁড়িয়ে দেখছিলেন অমিতাভ।

ড্যানির সঙ্গে অমৃতাকে নাচতে দেখে একেবারেই ভালো লাগছিল না অমিতাভের। হঠাৎ মঞ্চে উঠে অমৃতার হাত ধরে নিজের দিকে টেনে তাকে চুমু খান।

আকস্মিক এই ঘটনায় সবাই তখন একটা ঘোরের মধ্যে। ঘোর কাটিয়ে অমৃতাও লজ্জায় এবং রাগে পার্টি ছেড়ে রেস্ট রুমে চলে যান।

ক্রিকেটার রবি শাস্ত্রীর সঙ্গেও প্রেম করেছেন অমৃতা। ১৯৯০ সালে রবি শাস্ত্রী বিয়ে করেন ঋতু সিংকে। এর পরের বছরই বয়সে ১২ বছরের ছোট সাইফ আলী খানকে বিয়ে করেন  অমৃতা।

আর এই বিয়ের পর অভিনয় ছেড়ে দেন অমৃতা। তবে ২০০৪ সালে ভেঙে যায় সেই বিয়েও। তখন ৯ বছরের মেয়ে আর ৩ বছরের ছেলেকে নিয়ে স্বামীর থেকে আলাদা হয়ে যান তিনি।

এরপর থেকে সিঙ্গেল পেরেন্ট হয়ে বড় করেছেন দুই সন্তানকে। তার মেয়ে সারা আলী খানও বলিউডের এ সময়ের আলোচিত অভিনেত্রী।

সূত্র- আনন্দবাজার পত্রিকা। 

এম

RTVPLUS