logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ১৬ এপ্রিল ২০২১, ৩ বৈশাখ ১৪২৮

কিশোরকে গাছে বেঁধে নির্যাতন করে ফেসবুকে ছবি, অভিযুক্ত গ্রেপ্তার

Picture on Facebook of a teenager being tied to a tree and tortured, accused arrested, rtv
কিশোরকে গাছে বেঁধে নির্যাতন করে ফেসবুকে ছবি, অভিযুক্ত গ্রেপ্তার

রাজশাহীর চারঘাট উপজেলায় কিশোরকে (১৩) গাছে বেঁধে অমানবিক নির্যাতনের ঘটনায় নির্যাতনকারী অবসরপ্রাপ্ত সেনা সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃত ব্যক্তির নাম জহিরুল ইসলাম (৪৫)। সে উপজেলার মেরামতপুর গ্রামের জয়েন শাহের ছেলে। কিশোরকে নির্যাতনের ঘটনায় ভুক্তভোগীর বাবা বাদী হয়ে অবসরপ্রাপ্ত ওই সেনা সদস্যের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন। ভুক্তভোগী কিশোর উপজেলার উত্তর মেরামাতপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণির শিক্ষার্থী। চারঘাট পৌরসভার মেরামাতপুর মহল্লার বাসিন্দা তারা।

এর আগে শুক্রবার (২ এপ্রিল) দুপুরে জহিরুলের পুকুরে মাছ চুরির অভিযোগে কিশোরকে গাছে বেঁধে নির্যাতন করে এবং পরে ছবি তুলে ফেসবুকে পোস্ট করেন তিনি। এ ঘটনায় শুক্রবার রাতেই অভিযুক্ত জহিরুলকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, জহিরুলের পুকুরে কয়েকজন মাছ ধরছিল। কিশোর ওই সময় পুকুরে গোসল করতে গেলে জহিরুল আসলে বাকিরা পালিয়ে যায়। তখন জহিরুল ওই কিশোরকে কান ধরে নিয়ে এসে গাছের সঙ্গে বেঁধে মারধর করেন। ঘণ্টা খানেক পর স্থানীয় কয়েকজন তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

চারঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাহাঙ্গীর আলম জানিয়েছেন, ওই কিশোরকে গাছে বেঁধে নির্যাতন করা হয়েছে। এ বিষয়ে থানায় একটি মামলা করা হয়েছে। মামলায় কিশোরকে নির্যাতনের অভিযোগ আনা হয়েছে। এছাড়া তাকে নির্যাতনের ছবি ইন্টারনেটে প্রকাশ করায় একই মামলায় জহিরুল ইসলামের বিরুদ্ধে তথ্য-প্রযুক্তি আইনের ধারা সংযুক্ত করা হয়েছে। তাকে আজ শনিবারই আদালতে পাঠানো হবে বলেও জানান এ পুলিশ কর্মকর্তা।

এসআর/

RTV Drama
RTVPLUS