Mir cement
logo
  • ঢাকা রোববার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

এক পরিবারে তিন খুন, মামলা করার লোক নেই

মাগুরায় এক পরিবারে তিন খুন

মাগুরা সদরের জগদল ইউনিয়নে গত শুক্রবার ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচন সামনে রেখে দু’পক্ষের সংঘর্ষে একই পরিবারে তিনজন খুন হলেও থানায় মামলা করার মতো কোনো ব্যক্তি নেই।

খুন হওয়া সবুর মোল্লার স্ত্রীর মিলিনা বেগম বলেন, সংঘর্ষে তিনজন খুন ও অন্য সদস্যরা জখম হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। যারা পরিবারের আছেন তারাও শোকে পাথর। এই ঘটনায় কে মামলা করবে তা এখনো ঠিক হয়নি। তবে আমরা বিচার চাই।

নির্বাচন সামনে রেখে সংঘর্ষে নিহত হন সবুর মোল্লা, তার ভাই কবির মোল্লা ও চাচাতো ভাই রহমান মোল্লা। শুক্রবার ঘটনার পর শনিবার মাগুরা সদর হাসপাতালে মরদেহগুলোর ময়নাতদন্ত শেষে পরিবারের কাছে মরদেহ বুঝিয়ে দেওয়া হয়। রাতে দাফন করা হয় নিজ নিজ এলাকায়।

দুই দিন পার হলেও এখন পর্যন্ত এই ঘটনায় কোনো মামলা হয়নি।

মিলিনা বেগম বলেন, আমার ছেলে সরকারি চাকরি করে। সে বাড়ি এসেছে। সে বারবার মূর্ছা যাচ্ছে। আমার স্বামীসহ স্বজন হারানোর বিচার চাই।

হাসপাতালে ভর্তিদের মধ্যে দুজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। তাদের আইসিইউতে রেখে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। পুরুষ কেউ বাড়িতে না ফিরলে মামলা করতেও পারছেন না বলে জানান মিলিনা বেগম।

তিনি বলেন, মাগুরার পুলিশ বলছে মামলা করতে। আমরা তো অসহায়। মামলা করার মতো এখন লোক নেই। সবাই ঘটনার দিন থেকে আহত।

মাগুরা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) মামুন হোসেন জানান, জগদলের ঘটনায় যে চারজন নিহত হয়েছেন, সেখানে মূলত দুটি গ্রুপের সংঘর্ষে। সেখানে ছিল সবুর মাতবর ও নজরুল মেম্বার গ্রুপ।

ঘটনায় নিহত ৪ নং ওয়ার্ডের সবুর মোল্লা, তার ভাই কবির মোল্লা ও চাচাতো ভাই রহমান। অন্যদিকে ইমরান নামে যে যুবক নিহত হয়েছেন তিনি মূলত ৩ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা এবং মেম্বার নজরুলের সমর্থক বলে আমরা জানতে পেরেছি।’

মামলা করার জন্য পুলিশ পরিবারগুলোকে জানালেও তারা এখন পর্যন্ত মামলা করতে পারেনি। তবে মামলা হবে বলেও জানান তিনি।

মামুন হোসেন বলেন, ঘটনার দিন রাতেই জিজ্ঞাসাবাদের জন্য চারজনকে আটক করা হয়েছে। সন্দেহভাজন হিসেবে আটক করায় তাদের নাম-পরিচয় জানানো হচ্ছে না।

এফএ/এসকে

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS