logo
  • ঢাকা সোমবার, ২৬ আগস্ট ২০১৯, ১১ ভাদ্র ১৪২৬

নুসরাত হত্যা : অধ্যক্ষের ভাগনিসহ দুই আসামি ৫ দিনের রিমান্ডে

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ১১ এপ্রিল ২০১৯, ১৭:১৮
ফেনীর সোনাগাজীতে মাদরাসা অধ্যক্ষের যৌন হয়রানির পর ছাত্রী নুসরাতকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যা মামলায় আরও দুই আসামির পাঁচ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

bestelectronics
আসমিরা হলেন- নুসরাতের সহপাঠী ও অভিযুক্ত অধ্যক্ষ সিরাজ উদ-দৌলার ভাগনি উম্মে সুলতানা পপি এবং মাদরাসা ছাত্র জোবায়ের আহমেদ।

আজ বৃহস্পতিবার ফেনীর সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শরাফ উদ্দিন আহম্মেদের আদালত তাদের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে বুধবার এ মামলায় প্রধান অভিযুক্ত মাদরাসার অধ্যক্ষ সিরাজউদ্দৌলার সাত দিন এবং অপর দুই আসামি মাদরাসার ইংরেজি বিভাগের প্রভাষক আফসার উদ্দিন ও নুসরাতের সহপাঠী আরিফুল ইসলামের পাঁচ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত।

এছাড়া এ মামলার অপর আসামি নুর হোসেন, কেফায়াত উল্লাহ জনি, মোহাম্মদ আলাউদ্দিন ও শাহিদুল ইসলামের পাঁচ দিন করে রিমান্ড দেন আদালত।

উল্লেখ্য, গেল ৬ এপ্রিল সকালে আলিম পরীক্ষা দিতে সোনাগাজী ইসলামিয়া সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসায় যান নুসরাত জাহান রাফি। এসময় কৌশলে তাকে ছাদে নিয়ে শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয় দুর্বৃত্তরা। পাঁচ দিন চিকিৎসাধীন থেকে বুধবার (১০ এপ্রিল) ঢাকা মেডিকেলের বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইউনিটে মারা যান নুসরাত। মৃত্যুর আগে তিনি লাইফসাপোর্টে ছিলেন।

এর আগে ২৭ মার্চ ওই ছাত্রীকে নিজ কক্ষে নিয়ে শ্লীলতাহানি করেন অধ্যক্ষ সিরাজউদ্দৌলা। এ ঘটনায় ছাত্রীর মা শিরিন আক্তার বাদী হয়ে সোনাগাজী মডেল থানায় মামলা করেন। ওই দিনই অধ্যক্ষ সিরাজউদ্দৌলাকে আটক করে পুলিশ। সে ঘটনার পর থেকে তিনি কারাগারে আছেন। এ মামলা প্রত্যাহারের জন্য নুসরাতকে চাপ দিয়ে আসছিলেন অধ্যক্ষের লোকজন। এরই একপর্যায়ে ৬ এপ্রিল মাদরাসার ছাদে নিয়ে নুসরাতের শরীরে আগুন ধরিয়ে দেয় দুর্বৃত্তরা।

জেএইচ

bestelectronics bestelectronics
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়