Mir cement
logo
  • ঢাকা শনিবার, ৩১ জুলাই ২০২১, ১৬ শ্রাবণ ১৪২৮

ভোট চাইতে গিয়ে গৃহবধূকে একা পেয়ে ধ'র্ষণ চেষ্টা!

প্রতীকী ছবি

ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য (ইউপি মেম্বার) নির্বাচনে প্রার্থীর পক্ষে ভোট চাইতে গিয়ে ফাঁকা বাড়িতে গৃহবধূকে একা পেয়ে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে দুই কর্মীর বিরুদ্ধে। সোমবার (১৪ জুন) দুপুর ১২টার দিকে ভোলার চরফ্যাশনের চরকলমী ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডে ঘটেছে এ ঘটনা। ঘটনার পরই গা-ঢাকা দিয়েছেন অভিযুক্ত কর্মী মান্নান ও খোকন।

আরও পড়ুন...অনার্স প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থীরা অটোপাস হচ্ছে

মঙ্গলবার (১৫ জুন) গৃহবধূ গণমাধ্যমকে জানান, স্বামী ও শ্বশুর বাড়ি থাকেন না। শাশুড়ি ও চতুর্থ শ্রেণি পড়ুয়া দেবরের সঙ্গে বাড়ি থাকা হয়। শাশুড়ি বাজারে ছিলেন আর দেবরকে নিয়ে দুপুরের রান্নার কাজ করছিলাম। এসময় মেম্বার প্রার্থী মো. ইয়াছিনের পোস্টার এবং হ্যান্ডমাইক নিয়ে মান্নান ঘরে ঢুকে। ঘরে বাক্সের দেয়ালে একটি পোস্টার লাগায় এবং আমার কাছে পানি খেতে চেয়ে দেবরকে মাইক দিয়ে রাস্তায় যেতে বলেন। তাকে গ্লাসে পানি দিলে আমাকে জাপটে ধরে মাটিতে ফেলে জোরপূর্বক ধর্ষণ চেষ্টা করে। আমি চিৎকার দেয়ার চেষ্টা করলে গলা টিপে ধরে। পরে অনেক ধস্তাধস্তির পর নিজেকে রক্ষা করে ঘর থেকে বের হয়ে বাবার বাড়ি চলে যাই।

ভুক্তভোগী গৃহবধূর শাশুড়ি জানিয়েছেন, আমার স্বামী ও ছেলে চট্টগ্রামে কাজ করে। তারা বাড়ি আসলে থানায় গিয়ে মামলা করব আমরা।

মেম্বার প্রার্থী মো. ইয়াছিন জানিয়েছেন, ঘটনার বিষয়ে জানতে পেরে সোমবার বিকেলে ভুক্তভোগীর বাড়ি গিয়েছিলাম। বাড়িতে ভুক্তভোগীর শাশুড়িকে পেলেও তাকে পাইনি। তবে তার শাশুড়ি জানিয়েছেন মান্নান তার পুত্রবধূর গহনা নিয়ে গেছেন এবং তাকে গলা টিপে ধরেছিল।

এ বিষয়ে শশীভূষণ থানার ওসি রফিকুল ইসলাম জানিয়েছেন, এখনো এ বিষয়ে কেউ থানায় অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে অবশ্যই আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এসআর/

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS