logo
  • ঢাকা বুধবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

গৃহবধূকে গণধর্ষণের পর স্বামীকে ডেকে এনে হত্যা

জামালপুর প্রতিনিধি, আরটিভি অনলাইন
|  ১৯ নভেম্বর ২০১৯, ১১:৫৯ | আপডেট : ১৯ নভেম্বর ২০১৯, ১২:৪৮
ধর্ষণ হত্যা স্বামী
প্রতীকী ছবি
জামালপুর সদর উপজেলায় এক গৃহবধূকে গণধর্ষণের পর তার স্বামীকে হত্যা করে রশিতে ঝুলিয়ে আত্মহত্যা বলে চালানোর অভিযোগ উঠেছে। গেল শুক্রবার রাতে উপজেলার শ্রীপুর ইউনিয়নের রামকৃষ্ণপুর গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

নির্যাতনের শিকার গৃহবধূকে গতকাল সোমবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।  এ  ঘটনায় পুলিশ একটি অপমৃত্যুর মামলা করলেও, ধর্ষণের মামলা নেয়নি বলে অভিযোগ নির্যাতিতা গৃহবধূর।

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন নির্যাতনের শিকার গৃহবধূ জানান, শুক্রবার রাত আটটার দিকে ঘর থেকে বের হলে প্রতিবেশী ছানোয়ার, শাওন ও রফিজ উদ্দিন তাকে বাড়ি থেকে ধরে নিয়ে যায়। পরে তাকে ছানোয়ারের বাড়ির পেছনে একটি জঙ্গলে নিয়ে ধর্ষণ করে এবং গাছের সঙ্গে বেঁধে মারধর করে।

এরপর ওই গৃহবধূকে ছানোয়ারের বাড়িতে আটকে রেখে তার স্বামীকে ডেকে এনে মারধর করে। মারধরে গৃহবধূর স্বামী মারা গেলে তার লাশ বাড়ির পাশে একটি গাছে ঝুলিয়ে আত্মহত্যা বলে চালিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করে। পরদিন সকালে পুলিশ গিয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য জামালপুর জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। পরে একটি অপমৃত্যু মামলা করে।

তবে হত্যাকাণ্ড ও ধর্ষণের বিষয়ে পুলিশ কোনও মামলা নেয়নি বলে অভিযোগ করেন নির্যাতিতা ওই গৃহবধূ। ওই গৃহবধূ বর্তমানে জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

পুলিশ জানায়, ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে এটি হত্যা না আত্মহত্যা তা জানা যাবে। তবে ওই গৃহবধূকে গণধর্ষণের বিষয়ে এখন পর্যন্ত থানায় কোনও অভিযোগ দায়ের হয়নি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

জেবি/পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • দেশজুড়ে এর সর্বশেষ
  • দেশজুড়ে এর পাঠক প্রিয়